প্রচ্ছদ

ইউসুফের এই কথায় রাগতে পারেন কোহলিরা

১৩ জানুয়ারি ২০১৯, ০৩:৩০

329

খেলা ডেস্ক :; অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে ভারতের ঐতিহাসিক টেস্ট সিরিজ জয়কে অতটা বড় করে দেখছেন না পাকিস্তানের সাবেক ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ ইউসুফ

একে তো টেস্ট র‌্যাঙ্কিংয়ে শীর্ষ দল। সঙ্গে যোগ করুন, অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে গড়া ইতিহাস। এর আগে যা করে দেখাতে পারেনি এশিয়ার কোনো দলই। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট সিরিজ জিতে সেই নতুন ইতিহাসই গড়েছে ভারত। বিরাট কোহলিদের শিবির তাই এখন ফুরফুরে মেজাজে। কিন্তু মোহাম্মদ ইউসুফের কথা শুনলে কোহলিদের পিত্তি জ্বলে যেতে পারে! পাকিস্তানের সাবেক ব্যাটসম্যান ভারতের এই ঐতিহাসিক সিরিজ জয়কে তেমন বড় করে দেখছেন না। ইউসুফের মতে, পাকিস্তানের এই দলটির সামর্থ্য আছে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে অস্ট্রেলিয়াকে হারানোর।

সাম্প্রতিক পারফরম্যান্স কিংবা কাগজে-কলমে শক্তি বিচারে কোহলিদের চেয়ে বেশ পিছিয়েই থাকবে সরফরাজ আহমেদের দল। সুনীল গাভাস্কার, মোহাম্মদ আজহারউদ্দিন, সৌরভ গাঙ্গুলি, মহেন্দ্র সিং ধোনিদের মতো অধিনায়কেরা যা করতে পারেননি কোহলির নেতৃত্বে তা করে দেখিয়েছে ভারতের এই দলটি—প্রথম অস্ট্রেলিয়া সফরের পর এই ৭১ বছরে দেশটির মাটিতে প্রথম টেস্ট সিরিজ জয়। গোটা ক্রিকেট বিশ্বই প্রশংসায় ভাসিয়ে দিচ্ছে ভারতীয় দলকে। কিন্তু ইউসুফ খুব একটা সন্তুষ্ট হতে পারেননি। টিম পেইনের এই অস্ট্রেলিয়া দল নাকি তাঁর দেখা দুর্বলতম। যদিও ইউসুফ এ কথাও বলেছেন, ভারতের জয়কে তিনি মোটেও খাটো করে দেখছেন না।

পাকিস্তানের হয়ে ৯০টি টেস্ট খেলা এই সাবেক ব্যাটসম্যান পিটিআইকে বলেন, ‘ভারতীয়দের অর্জন বেশ বড় এবং তাঁরা ভালো খেলেই সিরিজ জিতেছে। তবে এটাও সত্য যে, গত সেপ্টেম্বরে আরব আমিরাতে পাকিস্তান ১-০ ব্যবধানে অস্ট্রেলিয়াকে হারানোয় আমি মোটেও অবাক হইনি। এই অস্ট্রেলিয়া দলের শক্তি এতটুকুই। আমার মতে, অস্ট্রেলিয়ার চেয়ে ভারত ও পাকিস্তান তুলনামূলক বেশি শক্তিশালি দল। পাকিস্তান দল এখন অস্ট্রেলিয়ায় গেলে তাঁদেরও সিরিজ জয়ের সুযোগ থাকবে।’

সরফরাজ আহমেদের নেতৃত্বে পাকিস্তান দল আপাতত অতটা ভালো করতে পারছে না। আরব আমিরাতে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে দ্বিতীয় টেস্ট জিতেছিল পাকিস্তান। কিন্তু প্রথম টেস্টে পাকিস্তানের জয় ছিনিয়ে ড্র করেছিল পেইনের এই অস্ট্রেলিয়াই। এরপর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তাঁরা আমিরাতে তাঁরা ‘হোম’ সিরিজ হেরেছে—যা ঘরের মাঠ হিসেবে গত ৪৯ বছরের মধ্যে কিউইদের বিপক্ষে প্রথম হারের নজির। আর দক্ষিণ আফ্রিকার মাটিতে এরই মধ্যে তিন ম্যাচ টেস্ট সিরিজে ২-০ ব্যবধানের হার নিশ্চিত করেছে সরফরাজের পাকিস্তান।

সর্বাধিক ক্লিক