প্রচ্ছদ

দল যার যার ,দেশ আমার….

১১ মে ২০১৯, ২১:১০

sylnewsbd.com

আব্দুল ওয়ায়েছ চৌধুরী জুবায়ের :: সিলেট জেলা ছাত্রদলের সাবেক অাহবায়ক বন্ধু ফয়সল আহমদ চৌধুরী গতকাল fb তে ছাত্র রাজনীতির ওপর যে লেখা দিয়েছে , সেই লেখার সূত্র ধরেই আজ আমি বলতে চাই ” দল যার যার , দেশ আমার ” – এই স্লোগান কে সামনে রেখে আমরা যারা বিগত দিন ছাত্র রাজনীতির অলি গলি ঘুরেছি তারা যদি নিজেদের দলীয় পরিচয় ভুলে এক হয়ে পথ চলা শুরু করি তবে আমার বিশ্বাস ছাত্র রাজনীতির চলমান অচলায়তন আমরা ভেঙ্গে দিতে পারবো |
ছাত্র রাজনীতির অচলায়তন একদিনে সৃষ্টি হয়নি | ৫২ এর ভাষা আন্দোলন থেকে ৯০ এর স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনে ছাত্ররাই ছিল চালিকা শক্তি | শাসক গোষ্ঠী এটা জানে বলেই ৯০ এর পর কুটকৌশলে ছাত্ররাজনীতির গৌরবময় ধারাকে নষ্ট করার হীন ষড়যন্ত্রে উপনীত হয়ে ছাত্র সংসদ নির্বাচন বন্ধ করে দিয়েছে I অথচ এই ছাত্র সংসদই নির্বাচন করতে পারতো আমাদের আগামী জাতীয় নেতৃত্ব |
আজ কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্ররাজনীতি নেই , বস্তীতে চলে গেছে | ফলে মেধাশূন্য হচ্ছে রাজনীতি ৷ বর্তমান সময়ে ছাত্রদলকে ক্যাম্পাসে খুব একটা দেখা যায় না , ছাত্রলীগ আকামে ব্যস্ত ৷ তা না হলে যে ছাত্রাবাস তাদের আবাসস্থল তা ( এম সি হোষ্টেল ) পুড়ায় কিভাবে ? যদি ছাত্র সংসদ নির্বাচন নিয়মিত হতো , তবে আমি চ্যালেঞ্জ দিয়ে বলতে পারি , ছাত্রলীগ আর যা ই করুক এম সি হোষ্টেল জ্বালানোর সাহস করতো না , ছাত্রদল ও যত নিগৃহীত হোক না কেন ক্যাম্পাস ছাড়তো না | কারন সাধারণ ছাত্রের সমর্থন ( ভোট ) পেতে সবাইকে থাকতে হ তো সক্রীয় l
একটু দূরে তাকান , খুঁজে পাবেননা একজন সুলতান মোঃ মনসুর বা একজন ইলিয়াস আলীকে | তাহলে সিলেটের ভবিষ্যৎ নেতৃত্ব কোথায় ? কতদিন আমরা টেকনোক্রেট দিয়ে চলবো ? হামলা , মামলা , লাঠি পেটা খেয়ে আমাদের রক্তে রঞ্জিত হবে রাজপথ আর সুফল নেবে টেকনোক্রেট আমলা আর ব্যবসায়ীরা ?
নিকট অতীতের কথাই ধরুন একজন ফয়সল , একজন নাদেল , জামান , মিজান , নাসির , মকলু , এমরান , জিল্লুর , মাহফুজ , ইমন , জগলু , শাহীন কিন্তু এমনি এমনি সৃষ্টি হয় নি ৷ এরাই কিন্তু ছাত্র সংসদ নির্বাচনের প্রত্যক্ষ এবং পরোক্ষ ফসল । এদের সবার হয়তো সুযোগ হবে না , কিন্তু এদের মধ্য থেকে আগামী দিনে ফয়সল , জামান , মিজান , নাদেল , নাসির যে জাতীয় সংসদে সিলেটের প্রতিনিধিত্ব করবেনা তা কি কেউ হলফ করে বলতে পারবে ? পারবেনা |
কিন্তু এরপর কি হবে ? কোথাও তো আলোর দেখা নেই | আর এই অন্ধকার দূর করার দায়িত্ব সবাইকে সম্মিলিত ভাবে নিতে হবে I পূর্ব পুরুষের ন্যায় উদাসীন হলে আমাদের আগামী প্রজন্ম যদি আমাদের কালপ্রিট বলে গালি দেয় , তবে তাদের দোষ দেয়া যাবে না I তাই সাধু সাবধান ৷ নতুন নেতৃত্বের পথ রুদ্ধ নয় , উন্মুক্ত করতে যার যার অবস্থান থেকে সক্রিয় ভূমিকা নিতে হবে |
সিলেটের আগামী প্রজন্মের নেতৃত্ব বিনির্মানে দলের পরিচয় সামনে আনা যাবে না | একজন সিলটি হিসেবে কাজ করতে হবে l চলতি বছর থেকে সিলেটের সবকটি কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রসংসদ নির্বাচনের অনুকূল পরিবেশ সৃষ্টি করতে হবে |
তাই আসুন ” দল যার যার , দেশ আমার ” — এই স্লোগান কে সামনে রেখে আমরাও ৫২ বা ৯০ এর মতো সিলেটে অন্তত ছাত্র সংগ্রাম পরিষদ এর ন‍্যায় সম্মিলিত ভাবে কাজ শুরু করি | ছাত্ররাজনীতির নেতৃত্ব প্রকৃত ছাত্রদের হাতে ফিরিয়ে দিতে উদ্যোগি হই | যদি আমরা সফল হতে পারি , তবে গোটা দেশ আমাদের পেছনে এসে দাঁড়াবে , আর আমরাও হয়ে যাবো ইতিহাসের অংশ |

 

সর্বাধিক ক্লিক