অনিশ্চয়তায় ভারতের চতুর্থ টেস্ট!

প্রকাশিত: ৪:৩৭ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৯, ২০২১

অনিশ্চয়তায় ভারতের চতুর্থ টেস্ট!

স্পোর্টস ডেস্ক ::
সিডনিতে সিরিজের চতুর্থ টেস্টের তৃতীয়দিনে সফরকারী ভারতের বিপক্ষে ব্যাট করছে অস্ট্রেলিয়া। তৃতীয়দিন শেষে ১৯৭ রানের লিড নিয়েছে স্বাগতিকরা।

এরইমধ্যে ১৫ জানুয়ারি ব্রিসবেনে হতে যাওয়া সিরিজের ৪র্থ ও শেষ টেস্ট নিয়ে অনিশ্চয়তার দেখা দিয়েছে। এর পেছনে একমাত্র দায়ী মহামারী করোনা।

জানা গেছে, ব্রিসবেনে করোনা পরিস্থিতি দিন দিন অবনতির দিকে যাচ্ছে। মহামারীর সংক্রমণ রুখতে আগামীকাল (শুক্রবার) থেকে তিন দিনের কঠোর লকডাউনে যাচ্ছে ব্রিসবেন। ফলে ব্রিসবেনের গ্যাবায় পরের সপ্তাহে হতে যাওয়া ভারত-অস্ট্রেলিয়ার চতুর্থ টেস্ট নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে।

ব্রিসবেনের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, শহরের প্রায় ২ মিলিয়ন অধিবাসী ঘরবন্দী হয়ে আছেন। অতি প্রয়োজন ছাড়া কোনোভাবেই বাইরে যাওয়ার অনুমতি পাচ্ছেন না তারা।

কুইন্সল্যান্ডের প্রধান আনাস্তসিয়া পালাসজুক এপিকে বলেছেন, মহামারীর ছড়িয়ে পড়াকে শুরুতেই থামিয়ে দিতে আমরা কঠোর হতে যাচ্ছি। এর জন্য সর্বোচ্চ পর্যায়ে যা করতে হয় তাই করা হবে। আমরা ব্রিসবেনকে করোনার হটস্পট অঞ্চল ঘোষণা করতে যাচ্ছি।

এদিকে সিডনি টেস্ট শেষ করে মঙ্গলবার যাবে ব্রিসবেনে যাবে ভারত দল। এমন লকডাউন পরিস্থিতি ও কুইন্সল্যান্ডের প্রধানের এই বক্তব্যের পর ৪র্থ টেস্ট মাঠে গড়াবে কি না তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

এছাড়া ব্রিসবেনে গিয়ে কুইন্সল্যান্ড রাজ্যের কঠোর করোনাবিধি নিয়ে অসন্তুষ্ট ভারত।

নিয়মানুযায়ী, ক্রিকেটাররা হোটেলের রুম ছাড়তে পারবেন না। মাঠে যাবেন ম্যাচ খেলতে, সেখান থেকে সোজা ফিরবেন হোটেলে। বাকি সময়টা থাকতে হবে নিজের কক্ষে। এমনকি হোটেলের মধ্যেও ঘোরাঘুরি করতে পারবেন না।

এমন কড়াকড়ি নিয়মে অসন্তুষ্টি জানিয়ে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াকে (সিএ) চিঠি পাঠায় ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড।

সংবাদ সংস্থা পিটিআই-এর খবর অনুযায়ী, সেই চিঠিতে ভারতীয় ক্রিকেটারদের জন্য ব্রিসবেনে চলাফেরার কঠোর নিয়ম শিথিল করতে বলা হয়েছে।

এরপর ব্রিসবেন টেস্ট নিয়ে দুই দেশের ক্রিকেট বোর্ডের মধ্যে বির্তক বাড়ে।

এবার সেখানে নতুন এই লকডাউন ভারতীয় দল কীভাবে নেয় সেটাই এখন দেখার বিষয়। যদিও ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড এখনও এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করেনি।

এ বিষয়ে সুনীল গাভাস্কার চ্যানেল সেভেনকে বলেছেন, ‘সিডনির মতো পরিবেশ ও সুযোগ ব্রিসবেনে পাচ্ছে না ভারতের ক্রিকেটাররা। সিডনিতে ক্রিকেটাররা বাইরে ডিনার সেরে নিতে পারছে। এমনকি পাবেও এক সঙ্গে ২০-৩০জন সহজভাবে যেতে পারছে। ব্রিসবেনেই ভারতীয় দল এমনটা চাইছে। কিন্তু কুইন্সল্যান্ড সরকারের কড়াকড়ি নিয়মে সেটা পারা যাবে না। আসলে তারা তাদের জনগণকে রক্ষা করতে চাইছে।’

তথ্যসূত্র: ইন্ডিয়া টুডে, এপি

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

আমাদের ফেইসবুক পেইজ