‘আমি পিসিবির চেয়ারম্যান হলে সবাইকে ছাঁটাই করে দিতাম’

প্রকাশিত: ১২:২৮ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ২১, ২০২১

‘আমি পিসিবির চেয়ারম্যান হলে সবাইকে ছাঁটাই করে দিতাম’

স্পোর্টস ডেস্ক :: ইংল্যান্ডের সি ক্যাটাগরির টিমের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে নাস্তানাবুদ হয়েছে পাকিস্তান। পরে পূর্ণ শক্তির ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজির প্রথমটিতে ঘুরে দাঁড়ালেও এতে উচ্ছ্বসিত হননি পাকিস্তানের সাবেক তারকা পেসার শোয়েব আখতারের।

বাবর আজমের নেতৃত্বাধীন তারুণ্যনির্ভর দলটিকে নিয়ে যেখানে এত আশা, সেখানে ইংলিশদের বিপক্ষে হোয়াটওয়াশের হতাশাতেই ডুবে আছেন তিনি।

তার মতে, পাকিস্তান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জিতলেও উচ্ছ্বাসের কিছু নেই। কারণ বাবর আজমের দল সঠিক পথে নেই।

আর শোয়েবের এমন হতাশা আর ক্ষোভের মাঝেই দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে হারল পাকিস্তান।

অবশ্য ওই হারের খবর শোনার আগেই রেগেমেগে আগুন এই সাবেক স্পিডস্টার। দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি বাবর আজম টসে জিতেও ফিল্ডিং নেওয়ায় ক্ষেপে যান শোয়েব আখতার।

খেলাচলাকালীন এক ভিডিওবার্তায় তিনি জানান, তার হাতে যদি ক্ষমতা থাকতো তাহলে ক্রিকেটার থেকে শুরু করে কর্মকর্তা- সবাইকে দল থেকে বরখাস্ত করতেন।

লিডসের হেডিংলিতে দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন পাক অধিনায়ক বাবর আজম। এতেই ক্ষেপে যান শোয়েব। কেন ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত ঠিক হয়নি বাবরের তার ব্যাখ্যা করতে ক্যামেরার সামনে দাঁড়িয়েছিলেন শোয়েব।

টুইটারে পোস্ট করা এক ভিডিও বার্তায় শোয়েব আখতার বলেন, ‘আমি বুঝতে পারছি না টস জিতে কেন ফিল্ডিং নেয়া হলো। যখন ইয়র্কশায়ারের এত রোদ উঠেছে তখন এই সিদ্ধান্তটা আমি বুঝতে পারছি না। এই সময় আপনি বোলিং করছেন কেন। ইংল্যান্ড ২৩২ করতে পারে। এমন সময় এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে যেই সময় বাটলার দলে ওপেন করছে।’

ম্যাচ শেষে দেখা গেল, শোয়েবের আশঙ্কাই সত্যতে পরিণত হলো। ইংল্যান্ডের করা ২০০ রানের তাড়ায় ১৫৫-তেই মুখ থুবড়ে পড়ে পাকিস্তান।

ওই ভিডিওবার্তায় শোয়েব আখতার ক্ষোভ উগড়ে দিয়ে বলেন, ‘আমি যদি পিসিবি’র চেয়ারম্যান হতাম তাহলে দলের ম্যানেজমেন্ট ও অধিনায়কের এই খারাপ সিদ্ধান্তের জন্য সবাইকে ছাঁটাই করে দিতাম।’

আমাদের ফেইসবুক পেইজ