এয়ারপোর্ট থানায় উগ্রবাদ প্রতিরোধে প্যানেল আলোচনা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত: ৪:৫৪ অপরাহ্ণ, মার্চ ২, ২০২১

এয়ারপোর্ট থানায় উগ্রবাদ প্রতিরোধে প্যানেল আলোচনা অনুষ্ঠিত

অনলাইন ডেস্ক:: দি এশিয়া ফাউন্ডেশনের অর্থায়নে এবং উন্নয়ন সংস্থা আইডিয়া কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন ”পিস” প্রকল্পের আওতায়” মঙ্গলবার সকালে এয়ারপোর্ট থানায় উগ্রবাদ প্রতিরোধে পুলিশ ও জনতার ভূমিকা” বিষয়ক একটি প্যানেল আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

পুলিশ ও জনগনের মধ্যকার দূরত্ব কমিয়ে পরস্পরের মধ্যে বিশ্বাস ও আস্থা তৈরির মাধ্যমে এলাকায় শান্তি-শৃঙ্খলা প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে পরিচালিত পুলিশের একটি প্রশংসনীয় উদ্যোগ হলো কমিউনিটি পুলিশিং। উগ্রবাদ সম্পর্কত নানাবিধ ইস্যু এবং উগ্রবাদ প্রতিরোধে আইনের বিধান সম্পর্কে জনসচেতনতা তৈরীর লক্ষ্যে কর্মশালাটি অনুষ্ঠিত হয়েছে।

দি এশিয়া ফাউন্ডেশনের প্রোগ্রাম অফিসার মোঃ হামিদুল হকের সঞ্চালনায় প্যানেল আলোচনায় উপস্থিত ছিলেন সিলেট মেট্রোপলিটান পুলিশ এয়ারপোটর্ থানার সহকারী পুলিশ কমিশনার আহমেদ পেয়ার, এয়ারপোর্ট থানার অফিসার-ইনচার্জ খান মুহাম্মদ মাইনুল জাকির, বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা আইনজীবি সমিতির সিলেট বিভাগীয় প্রধান এ্যাডভোকেট শিরিন আক্তার, এবং বাংলাদেশ ইসলামিক ফাউন্ডেশন সিলেটের মাস্টার ট্রেইনার মুহাম্মদ মামুনুর রশীদ।

এছাড়াও এতে কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের সদস্য, এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ এবং বভিন্ন কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় ও মাদ্রাসার ছাত্র-ছাত্রীসহ মোট ৮৭ জন অংশগ্রহণ করেন।

উন্নয়ন সংস্থা আইডিয়ার পক্ষে পিস প্রকল্পের ট্রেনিং ও প্রোগ্রাম অফিসার এবং কর্মশালার উপস্থাপক রোজিনা চৌধুরী উপস্থিত অতিথিদের স্বাগত জানান। তিনি পিস প্রকল্প এবং প্যানেল আলোচনার লক্ষ্য-উদ্দ্যশ্য বর্ণনা করেন। অনুষ্ঠানটি পরিচালনায় সহযোগিতা করেন শৈলেন্দ্র দেব নাথ, উপজেলা ফেসিলিটেটর, পিসপ্রকল্প এবং পিস প্রকল্পের শিক্ষানবীশ ফারজানা রাইদা।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

আমাদের ফেইসবুক পেইজ