কুলাউড়ায় প্রবাসীর স্ত্রী নুরজাহান নিখোঁজ, থানায় জি.ডি.

প্রকাশিত: ৮:১৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১১, ২০২০

কুলাউড়ায় প্রবাসীর স্ত্রী নুরজাহান নিখোঁজ, থানায় জি.ডি.

স্বপন দেব, নিজস্ব প্রতিবেদক :: মৌলভীবাজারের কুলাউড়া দু’বছর আগে দুবাই প্রবাসী আলম আলী শাহ’র সাথে বিয়ে হয়েছিল নুরজাহান আক্তার মিতার। বিয়ের কিছুদিন পর কর্মস্থলে দুবাইয়ে ফিরে যান আলম আলী শাহ।

শ্বশুরবাড়ির লোকজন বলেন, গত মঙ্গলবার রাতে ১৫ ভরি স্বর্ণালংকার ও বিপুল পরিমাণ নগদ অর্থ নিয়ে শ্বশুরবাড়ি থেকে বের হয়ে যান মিতা। এরপর থেকে পাওয়া যাচ্ছে না তার কোনো হদিস। এ ঘটনায় শুক্রবার তার ভাসুর মো. আক্কাছ আলী শাহ বাদী হয়ে মৌলভীবাজারের কুলাউড়া থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেছেন।

অভিযোগ সূত্র জানায়, প্রায় দুই বছর আগে কুলাউড়া উপজেলার বরমচাল ইউনিয়নের দক্ষিণ রাউৎগাঁও গ্রামের মৃত ইয়াকুব আলী শাহ্’র ছেলে দুবাই প্রবাসী আলম আলী শাহ’র সঙ্গে ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার যুথিষ্টিপুর গ্রামের মাওলানা মো. নুরুল ইসলামের কন্যা নুরজাহান আক্তার মিতার বিয়ে হয়।

গত মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে নুরজাহান আক্তার কাউকে কিছু না জানিয়ে তার ব্যবহৃত ৫ ভরি স্বর্ণালংকার, প্রবাসী আলমের বড় ভাই মো. আক্কাছ আলীর স্ত্রী হাছনা বেগমের ব্যবহৃত ৫ ভরি স্বর্ণালংকার ও ছোট ভাইয়ের স্ত্রী আলেমা মারিয়ার ব্যবহৃত ৫ ভরি স্বর্ণালংকারসহ নগদ টাকা ও ব্যবহৃত কাপড়-চোপড় নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে যান। এরপর থেকে অনেক খোঁজাখুঁজির পরও তাকে পাওয়া যায়নি।

নিখোঁজ নুরজাহান আক্তার মিতার মা সুফিয়া বেগম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, কেউ তার সন্ধান পেলে কুলাউড়া থানা পুলিশকে অবগত করার অনুরোধ করছি।

কুলাউড়া থানার ওসি ইয়ারদৌস হাসান প্রবাসীর স্ত্রী নিখোঁজ হওয়ার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, সাধারণ ডায়েরি হয়েছে। পুলিশ তদন্ত করছে। দ্রুত নিখোঁজ নুরজাহান আক্তার মিতার সন্ধান পাওয়া যাবে বলে ওসি জানান।

 

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

আমাদের ফেইসবুক পেইজ