কুয়েতে নতুন আইন অনুমোদন, বিপাকে ৮ লাখ ভারতীয়

প্রকাশিত: ১:৫৯ অপরাহ্ণ, জুলাই ৭, ২০২০

কুয়েতে নতুন আইন অনুমোদন, বিপাকে ৮ লাখ ভারতীয়

সিল-নিউজ-বিডি ডেস্ক :: অভিবাসীর সংখ্যা কমাতে নতুন আইন করতে যাচ্ছে কুয়েত। সম্প্রতি দেশটির ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলি কমিটি একটি সংরক্ষণ বিলের খসড়ায় অনুমোদন দিয়েছে। বিলটি আইন হিসেবে পাস হলে কুয়েত ছাড়তে হবে অন্তত ৮ লাখ ভারতীয়কে।

কুয়েতের স্থানীয় গণমাধ্যমের বরাতে এ তথ্য জানিয়েছে কলকাতার আনন্দবাজার পত্রিকা।

ওই বিলের বিলের প্রস্তাব অনুযায়ী, দেশের মোট জনসংখ্যার মাত্র ১৫ শতাংশ ভারতীয় কুয়েতে থাকতে পারবেন। অন্যান্যদের ছাড়তে হবে কুয়েত। তবে দেশটির নতুন আইনে শুধু ভারতীয় না অন্যান্য দেশের প্রবাসীদেরও কুয়েত ছাড়তে হবে।

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের কারণে দেশটিতে তেলের ব্যবসায় ধস নেমেছে। সেইসঙ্গে দেশটিতে প্রবাসীদের মধ্যে করোনার সংক্রমণ হু হু করে বাড়ছে।

এই পরিস্থিতিতে গত মাসেই কুয়েতের প্রধানমন্ত্রী শেখ সাবা আল খালিদ আল সাবা প্রবাসীদের পরিমাণ ৭০ থেকে ৩০ শতাংশে নামিয়ে আনার প্রস্তাব দেন।

কুয়েতের জনসংখ্যা ৪৩ লক্ষের কাছাকাছি। তার মধ্যে মাত্র ১৩ লক্ষ দেশের নাগরিক। বাকি ৩০ লক্ষই প্রবাসী! প্রবাসীদের মধ্যে সবচেয়ে বড় অংশ হলো ভারতীয়েরা।

কুয়েতে ভারতীয় দূতাবাস জানিয়েছে, অন্তত ২৮ হাজার ভারতীয় এখানে সরকারি চাকরি করেন। তবে তাদের বাইরে একটা বড় অংশ বেসরকারি ক্ষেত্রেও কর্মরত। দেশের ২৩টি ভারতীয় স্কুলে ৬০ হাজার ভারতীয় ছাত্রছাত্রী পড়াশোনা করে।

কুয়েতে ৪৯ হাজার মানুষ করোনায় আক্রান্ত। তাদের একটা বড় অংশ বিদেশি শ্রমিক।

কুয়েত ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলির স্পিকার মারজুক আল-ঘানেমের বলেন, কুয়েতের ৩০ লাখ প্রবাসীর মধ্যে ১০ লাখেরও বেশি নিরক্ষর। শ্রমিকের কাজ করতে এসেছেন। ডাক্তার বা দক্ষ কর্মচারীদের আমরা জায়গা দিতে পারি। কিন্তু এত বিপুল অদক্ষ কর্মচারীর প্রয়োজন নেই আমাদের দেশে।

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

MonTueWedThuFriSatSun

আমাদের ফেইসবুক পেইজ