ছাতকে প্রতিপক্ষের সন্ত্রাসী হামলায় নগদ অর্থ, মোবাইলসহ স্বর্ন লুটপাট

প্রকাশিত: ৯:৩৪ অপরাহ্ণ, জুন ১৩, ২০২০

ছাতকে প্রতিপক্ষের সন্ত্রাসী হামলায় নগদ অর্থ, মোবাইলসহ স্বর্ন লুটপাট

ছাতক প্রতিনিধি::ছাতকে প্রতিপক্ষের হামলায় মোহাম্মদ আলী (১৮) নামের ব্যক্তি গুরুতর আহত হয়েছে। শুক্রবার সন্ধায় ছাতক উপজেলার চরমহল্লা ইউনিয়ন এর হাসারুচর গ্রামে এ হামলার ঘটনা গতকাল শুক্রবার রাত্রে এঘটনা ঘটে।

যানাযায়, দীর্ঘদদিন ধরে তাদের মধ্যে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে বিরুধ চলছে। দিবাগত রাত্র মোহাম্মদ আলী, সিলেট থেকে বাড়িতে আসার সময় খরিদিচর পয়েন্টে এসে গাড়িতে নেমে বাড়িতে যাওয়ার পথে ফয়জুল ইসলাম (২৫) পিতা ফকির আলী এবং নুর হোসেন (২৮) পিতা নজির আলী পুত্র সংঙ্গীদে সাথে নিয়ে ছিনতাইয়ের উদ্দ্যেশে তার গতিরোধ করে তাকে ধরে তার উপর আক্রমন করে ডেগার দিয়ে প্রাণে মারার ভয় দেখিয়ে তার সাথে থাকা Samsung S10+ মোবাইল সেট যার মূল্য ৭২,০০০হাজার টাকা তার সাথে থাকা খুচরা নোট ৮৩০টাকাসহ মোট ১০,৮৩০টাকা ও ডাচ বাংলা ব্যাংক আম্বর খানা শাখার একটি এটিএম কার্ড জোরপুর্বক ছিনিয়ে নেয়। এক পর্যায়ে বাড়ির পাশে আহত মোহাম্মদ আলীর শোর চিৎকার শেনে তার বোন বের হয়ে ঘটনাস্থলে বাড়ির সামনের রাস্তায় গেলে ফয়জুল ইসলাম তার চুল ধরেটানাহুচরা করে শ্লীলতাহানি করে এবং ডেগার দিয়ে ভয় দেখিয়ে তাকে হত্যার ভয় দেখিয়ে তার গলায় থাকা ৩ভরি স্বর্নের গলার হার যার মুল্য অনুমান প্রায় ১,৫৪,০০০ একলক্ষ চুয়ান্ন হাজার টাকা।

একপর্যায়ে তাদের শোরচিৎকার শুনে ডাকাত এসেছে ডাকাত এসেছে শুনে আশপাশের লোকজন চুটে আসেন ঘটনাস্থলে কিন্তু পরিস্থিতি খারাপ দেখে ফয়জুল ইসলামের পক্ষের লোকজন মোহাম্মদ আলীর বসতঘরে হামলা করে ভাংচুর করে।

এদের বিরুদ্ধে এলাকায় পুকুরে মাছ চুরি, নৌকা চুররি গরু চুরি সহ অসংখ্য চুরি ডাকাতির মামলা মকদ্দমা রয়েছে। গ্রামের পঞ্চায়তি স্টাম্পে লিখিত স্বক্ষর রয়েছে। যাতে তারা ভবিষ্যতে চুররি ডাকাতি না করে।
তাদের এসব কর্মকান্ডে এলাকার মানুষ আর্তকে আছেন।

আহত মোহাম্মদ আলীকে স্থানীয় কৈতক মেডিকেলে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় ছাতক থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে যানাগেছে।

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

MonTueWedThuFriSatSun

আমাদের ফেইসবুক পেইজ