জোড়া গোলে শুরু ভার্ডির

প্রকাশিত: ১২:৩৭ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৪, ২০২০

জোড়া গোলে শুরু ভার্ডির

বিবিসি স্পোর্ট :

প্রিমিয়ার লিগে ওয়েস্ট ব্রমের প্রত্যাবর্তন হল হতাশার হার দিয়ে। হতাশা উপহার দিলেন তাদের জেমি ভার্ডি। পেনাল্টিতে দেয়া তার জোড়া গোলে লেস্টার ৩-০ ব্যবধানে ওয়েস্ট ব্রমকে উড়িয়ে মসৃণ সূচনা করল লেস্টার।

অপর গোলদাতা এ মৌসুমে সেরি-এ লিগের দল আতালান্তা থেকে ২১ মিলিয়ন পাউন্ডে লেস্টারে আসা টিমোথি কাস্তাগনে। দ্বিতীয়ার্ধের ৯ মিনিটে অচলায়তন ভাঙেন তিনি। গেল মৌসুমে প্রিমিয়ার লিগের সর্বোচ্চ গোলদাতা (২৩ গোল) ৩৩ বছর বয়সী ভার্ডি ১৯ মিনিটের ব্যবধানে পেনাল্টিতে দুটি গোল করে লেস্টারকে বড় জয় উপহার দেন। দিনের অপর ম্যাচে এভারটন ১-০ গোলে হারিয়েছে টটেনহ্যামকে।

সালাহর হৃদয় ছোঁয়া উদযাপন রোমাঞ্চকর জয় দিয়ে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে শিরোপা ধরে রাখার অভিযান শুরু করেছে লিভারপুল। শনিবার অ্যানফিল্ডে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ ম্যাচে লিডস ইউনাইটেডকে ৪-৩ গোলে হারিয়েছে অলরেডরা। অনবদ্য হ্যাটট্রিকে লিভারপুলের জয়ের নায়ক মোহামেদ সালাহ।

৮৮ মিনিটে পেনাল্টি থেকে তার তৃতীয় গোলটিই পুরো তিন পয়েন্ট এনে দেয় চ্যাম্পিয়নদের। এই গোলের পর অন্যরকম এক উদযাপনে শুধু চোখ নয়, সবার মনও জুড়িয়েছেন মিসরীয় ফরোয়ার্ড। দুই হাত কানে রেখে জিভ বের করে গোল উদযাপনের পেছনের গল্পটা আবার সামনে নিয়ে এসেছে সালাহর মানবিক মুখ। হ্যাটট্রিকের চেয়েও অসুস্থ বন্ধুকে স্মরণ করে হৃদয়ছোঁয়া উদযাপনের জন্য বেশি প্রশংসিত হচ্ছেন লিভারপুল তারকা। এভাবেই গোল উদযাপন করতেন মিসরের ক্লাব আল আহলির মিডফিল্ডার মোয়ামেন জাকারিয়া।

মিসর জাতীয় দলে সালাহর সতীর্থ ছিলেন তিনি। গত মাসে জাকারিয়ার শরীরে ধরা পড়ে এএলএস নামের এক বিরল রোগ। এ রোগে স্নায়ুতন্ত্র, মস্তিষ্ক ও স্পাইনাল কর্ড ক্ষতিগ্রস্ত হয়। স্থায়ী কোনো চিকিৎসা না থাকায় আর কখনও ফুটবল খেলতে পারবেন না জাকারিয়া। জিভ বের করে গোল উদযাপন করতেও দেখা যাবে না তাকে।

গত পরশু রাতে বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় লিগে বন্ধুর হয়ে কাজটা করে দিলেন সালাহ। বুঝিয়ে দিলেন খ্যাতির শিখরে পৌঁছেও শিকড় ভুলে যাননি তিনি। শুধু ভক্তদের হৃদয়ে নয়, রেকর্ডবুকেও দাগ কেটেছেন সালাহ। প্রিমিয়ার লিগ-যুগে লিভারপুলের প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে মৌসুমের প্রথমদিনই করেছেন হ্যাটট্রিক।

পাশাপাশি ভেঙেছেন ওয়েন রুনির একটি রেকর্ড। প্রিমিয়ার লিগে শেষ যে ৩৫ ম্যাচে গোল করেছেন সালাহ তার সবগুলোই জিতেছে লিভারপুল। এর আগে রুনির গোল পাওয়া টানা ৩৪ ম্যাচে জিতেছিল ম্যানইউ।

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

MonTueWedThuFriSatSun

আমাদের ফেইসবুক পেইজ