নির্মাণ শিল্পকে সহজতর করতে বাংলাদেশে বিনিয়োগ বাড়াচ্ছে স্যানি ইন্ডিয়া

প্রকাশিত: ৭:৪৬ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২, ২০২১

নির্মাণ শিল্পকে সহজতর করতে বাংলাদেশে বিনিয়োগ বাড়াচ্ছে স্যানি ইন্ডিয়া

 

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাংলাদেশে চলমান অবকাঠামোগত উন্নয়নকে অভাবনীয় উল্লেখ করে এক্ষেত্রে নিজেদের অবদান আরো সম্প্রসারণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন নির্মাণ সরঞ্জাম কোম্পানি স্যানি।

স্যানি ইন্ডিয়া এবং দক্ষিণ এশিয়ার ম্যানেজিং ডিরেক্টর দীপাক গার্গ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানান, উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে বিশ্বদরবারে উঠে দাঁড়ানোর লক্ষ্যে বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক গৃহীত ‘অবকাঠামোগত উন্নয়ন তহবিল’ এক নতুন উদ্দীপনার নাম। এর অধীনে, দেশটির উন্নয়নে নতুন মাত্রা যোগ করতে নির্মাণ সরঞ্জামের বাজারে নিজেদের উপস্থিতি আরও দৃঢ় করার জন্য ব্যাপক পরিকল্পনা নিয়েছে স্যানি ।

তিনি জানান, স্যানি বাংলাদেশের অবকাঠামোগত উন্নয়নে আন্যতম প্রধান ভূমিকা পালন করে আসছে। বাংলাদেশের সর্বপ্রথম পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র ‘রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র’-এর নির্মাণে স্যানি’র প্রায় ২৫ টি টাওয়ার ক্রেন ব্যবহৃত হচ্ছে। ‘ঢাকা বিমানবন্দর ৩য় টার্মিনাল’ প্রজেক্টে দেশের সর্ববৃহৎ ব্যাচিং প্ল্যান্টের ৩ টি ইউনিট স্থাপনেও কৃতিত্ব রয়েছে স্যানি’র। এছাড়া, ঢাকা মেট্রোরেল প্রজেক্ট, ঢাকা এলেভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে প্রজেক্ট, বিআরটি রোড প্রজেক্ট, পূর্বাচল রোড প্রজেক্ট, পায়রা সমুদ্র বন্দর, ক্রস বর্ডার রোড প্রজেক্ট, আগরতলা- আখাউড়া রেল লিংক, রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্রসহ বাংলাদেশে চলমান প্রায় সবক’টি বড় বড় প্রকল্পেও স্যানির যন্ত্রপাতি মূল্যবান ভূমিকা রাখছে।

দীপাক গার্গ আরো জানান, স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীর বছরই বাংলাদেশের উন্নয়নে মূখ্য ভূমিকা রাখতে প্রস্তুতি নিচ্ছে স্যানি। প্রতিবেশী দেশ ভারতের পুনে-তে রয়েছে স্যানি’র দৃষ্টিনন্দন উৎপাদন কেন্দ্র এবং বাংলাদেশে নির্মাণ সরঞ্জাম রপ্তানিতে অন্যতম ভূমিকা রেখে আসছে ভারত। বাংলাদেশে লক্ষ্যনীয় হারে নির্মাণ সরঞ্জামের চাহিদা বৃদ্ধি পাওয়ায় বাজার বিশ্লেষকদের মতামত নিয়ে এখানে বিনিয়োগ বাড়াচ্ছে কোম্পানিটি। বাংলাদেশে অবকাঠামোগত উন্নয়নের যুগ গড়ে তুলতে স্যানি ইন্ডিয়া তার সেরাটি দেয়ার জন্য প্রস্তুত বলে জানিয়েছেন দীপাক গার্গ।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশে স্যানি ইন্ডিয়ার একমাত্র সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান ও সার্ভিস পার্টনার পাওয়ারভিশন লিমিটেড যারা বৃহৎ পরিসরে এক্সক্যাভেটরস, কংক্রিট, রোড, ক্রেন, পাইলিং এবং পোর্ট ইকুইপমেন্ট ইত্যাদি নিয়ে কাজ করে। উল্লেখ্য যে, বাংলাদেশে পাওয়ারভিশন লিমিটেড-ই প্রথম ও একমাত্র প্রতিষ্ঠান যারা মিউচ্যুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক-এর সাথে ‘ওইএম’ সরঞ্জাম অর্থায়নের লক্ষ্যে ‘এমওইউ’ স্বাক্ষর করেছে। দেশের বিভিন্ন স্থানে ২৫ টি গ্রাহক সেবাকেন্দ্রে, দেশজুড়ে বিক্রয় ও সার্ভিস নেটওয়ার্কের সর্ববৃহৎ নেটওয়ার্ক পরিচালনা করছে প্রতিষ্ঠানটি। বিভিন্ন প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, ২০১৯ সালে এ কোম্পানির অবকাঠামোগত সরঞ্জামের সর্বমোট বাজারমূল্য ছিল প্রায় ১৫’শ কোটি টাকা এবং শুধু গত দুই বছরেই হেভি-ডিউটি সরঞ্জামাদির চাহিদা বৃদ্ধি পেয়েছে প্রায় ২ শত গুন।

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

MonTueWedThuFriSatSun
     12
17181920212223
24252627282930
31      
       
       
1234567
2930     
       

আমাদের ফেইসবুক পেইজ