পাপুলকাণ্ডে কুয়েতে রাজনীতিবিদ ও কর্মকর্তা গ্রেফতার

প্রকাশিত: ২:১৪ অপরাহ্ণ, জুলাই ৪, ২০২০

পাপুলকাণ্ডে কুয়েতে রাজনীতিবিদ ও কর্মকর্তা গ্রেফতার

অনলাইন ডেস্ক :;

বাংলাদেশি সংসদ সদস্য কাজী শহিদ ইসলাম পাপুল কুয়েতে মানবপাচারের ঘটনায় একের পর এক গ্রেফতার হচ্ছেন দেশটির শীর্ষ কর্মকর্তারা।

পাপুলকে আর্থিক লেনদেনে সহায়তা ও ঘুষগ্রহণ, ভিসা বিক্রিসহ বিভিন্ন অভিযোগে কুয়েতের উচ্চপর্যায়ে তদন্ত চলছে।

এর আওতায় সর্বশেষ দেশটির জনশক্তি কর্তৃপক্ষের এক কর্মকর্তা ও গত পার্লামেন্ট নির্বাচনের এক প্রার্থীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাদের ২১ দিনের জন্য কারাগারে পাঠানো হয়েছে। আরব টাইমস অনলাইনের খবর।

কুয়েতে আদম ব্যবসায় অনিয়ম এবং হাজার কোটি টাকার কারবারে জড়িত সন্দেহে ৬ জুন বাংলাদেশের সংসদ সদস্য পাপুল দেশটির পুলিশের হাতে আটক হন।

গত সপ্তাহে রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ২৪ জুন তাকে ২১ দিনের জন্য কুয়েতের কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়।

আরব টাইমস জানায়, পাপুলকাণ্ডে চলমান তদন্তে উঠে এসেছে কুয়েতের আরও অনেক উচ্চপদস্থ কর্মকর্তার নাম। অপেক্ষা করছে আরও অনেক চমক।

এদিকে পাপুলকে সহযোগিতার অভিযোগ ওঠে কুয়েতের দুই এমপির বিরুদ্ধে। ২৭ জুন দেশটির পাবলিক প্রসিকিউটর সালাহ খুরশিদ ও সাদুন হাম্মাদ নামের ওই দুই এমপির বিরুদ্ধে আনুষ্ঠানিকভাবে অভিযোগ আনেন।

তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করার সুযোগ তৈরি করতে সংসদের কাছে তাদের দায়মুক্তির (ইমিউনিটি) অধিকার প্রত্যাহারের আবেদন করে প্রসিকিউটরের কার্যালয়।

স্থানীয় পত্রিকা আল-কাবাস বৃহস্পতিবার জানিয়েছে, ওই দুই এমপির ‘সংসদীয় ইমিউনিটি’ প্রত্যাহার করার আবেদন অনুমোদন করেছে কুয়েতের সংসদীয় বিচার বিষয়ক কমিটি।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

MonTueWedThuFriSatSun

আমাদের ফেইসবুক পেইজ