ভারতে টিকটকসহ ৫৯ অ্যাপ নিষিদ্ধের প্রতিক্রিয়ায় যা জানাল চীন

প্রকাশিত: ৬:২৯ অপরাহ্ণ, জুন ৩০, ২০২০

ভারতে টিকটকসহ ৫৯ অ্যাপ নিষিদ্ধের প্রতিক্রিয়ায় যা জানাল চীন

অনলাইন ডেস্ক :
টিকটক, শেয়ার-ইট, ইউসি ব্রাউজারের মতো জনপ্রিয় অ্যাপ নিষিদ্ধ করার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে চীন। সেইসঙ্গে নয়াদিল্লির এই সিদ্ধান্তের পর পরিস্থিতি খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছে দেশটি।

রয়টার্স জানিয়েছে, সীমান্ত সংঘাতের আবহে মঙ্গলবার চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এমন সংক্ষিপ্ত প্রতিক্রিয়াই দিয়েছে।

সোমবার টিকটক, ইউসি ব্রাউজার, শেয়ার-ইট, উই-চ্যাট, ক্যামস্ক্যানারের মতো ৫৯টি মোবাইল অ্যাপ নিষিদ্ধ করেছে মোদি সরকার।

ভারতের তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ওই অ্যাপগুলো দেশের সার্বভৌমত্ব, অখণ্ডতা, দেশের সুরক্ষার জন্য ক্ষতিকারক। সে কারণেই অ্যাপগুলো নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

যে সব অ্যাপ নিষিদ্ধ করা হয়েছে সেই তালিকায় রয়েছে আলিবাবা, টেনসেন্ট, শাওমির মতো একাধিক সংস্থা। ভারতের এই ‘ডিজিটাল স্ট্রাইক’ কি চীনা ব্যবসায়ীদের স্বার্থের পরিপন্থী নয়?

এই প্রশ্নের উত্তরে চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ঝাও লিজিয়ান বলেন, ‘চীন এ ব্যাপারে গভীরভাবে উদ্বিগ্ন।’ এই পরিস্থিতি খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলেও মন্তব্য করেছেন তিনি।

গত কয়েক দিন ধরে চীনের সঙ্গে চলমান উত্তেজনা বেড়েই চলছে।

লাদাখের পর এবার প্যাংগংয়ে বিরোধীয় এলাকায় বিশালাকার চীনা লিপি ও মানচিত্র এঁকেছে বেইজিং। মঙ্গলবার পাওয়া স্যাটেলাইট ছবিতে এ চিত্র দেখা গেছে বলে জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম এনডিটিভি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ফিঙ্গার ৪ ও ফিঙ্গার ৫ এর মাঝে বিশালাকার চীনা লিপি ও মানচিত্র এঁকে দেওয়া হয়েছে। অন্তত ৮১ মিটার লম্বা ও ২৫ মিটার দীর্ঘ এলাকায় এসব অংকন করা হয়েছে।

পাশাপাশি ওই দুই ফিঙ্গার পয়েন্টের মাঝে প্রচুর অস্থায়ী ছাউনি তৈরি করে চীনা বাহিনী। মজুত করেছে অস্ত্রশস্ত্রও।

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

MonTueWedThuFriSatSun

আমাদের ফেইসবুক পেইজ