সমঝোতা নিয়ে বাইডেন প্রশাসনকে যে বার্তা দিলেন খামেনি

প্রকাশিত: ৬:৪০ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৭, ২০২১

সমঝোতা নিয়ে বাইডেন প্রশাসনকে যে বার্তা দিলেন খামেনি

অনলাইন ডেস্ক

যুক্তরাষ্ট্র সব নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নিলে ইরান পরমাণু সমঝোতায় দেওয়া প্রতিশ্রুতিগুলো পূর্ণভাবে মানা শুরু করবে বলে জানিয়ে দিয়েছেন দেশটির সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলী খামেনি।

রোববার ইরানের বিমান বাহিনী ও অ্যারোস্পেস ডিভিশনের কমান্ডার ও পাইলটদের এক সমাবেশে তিনি এ ঘোষণা দেন বলে ইরনা জানিয়েছে।

খামেনি বলেন, ইরান তখনই পরমাণু সমঝোতায় দেওয়া প্রতিশ্রুতিগুলো পূর্ণভাবে মানতে শুরু করবে যখন যুক্তরাষ্ট্র মুখে বা কাগজে নয় বরং বাস্তবে সব নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নেবে। এটাই ইরানের চূড়ান্ত ও অলঙ্ঘনীয় নীতি। এ বিষয়ে দেশের সব কর্মকর্তা একমত। কেউ এই নীতি লঙ্ঘন করবে না।

পরমাণু সমঝোতা ও নিষেধাজ্ঞা নিয়ে মার্কিন ও ইউরোপীয় নেতাদের প্রতি ইঙ্গিত করে খামেনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্র বা ইউরোপ কোনো ধরণের শর্ত আরোপের অধিকার রাখে না। কারণ তারা পরমাণু সমঝোতায় প্রতিশ্রুতি দিয়ে সেগুলো লঙ্ঘন করেছেন।

এখন যে পক্ষ শর্ত আরোপ করতে পারে সেটা হলো ইরান। কারণ ইরান প্রতিশ্রুতি দিয়ে তা রক্ষা করেছে।

এদিকে তেল নিষেধাজ্ঞাসহ বড় ধরনের অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞাগুলো তুলে না নিয়ে তেহরানের ওপর আর্থিক চাপ কমিয়ে আনার উপায় নিয়ে ভাবছে বাইডেন প্রশাসন।

চারটি সূত্রের বরাত দিয়ে মার্কিন বার্তা সংস্থা ব্লুমবার্গ এ খবর জানিয়েছে।

এ বিষয়ে মার্কিন সরকারের অন্যতম বিকল্প হলো ইরানকে আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল থেকে সহায়তা করা। এর মাধ্যমে করোনাভাইরাস প্রাদুর্ভাবের এ সময়ে অর্থনৈতিক মন্দার সঙ্গে লড়াই করতে সক্ষম হবে দেশটি।

সূত্রমতে, বাইডেন প্রশাসন যে বিষয়টি বিবেচনা করছে তা হলো সব নিষেধাজ্ঞা শিথিল করা, যাতে করোনার সঙ্গে সম্পর্কিত আন্তর্জাতিক সাহায্যগুলো ইরানে পৌঁছতে পারে।

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

আমাদের ফেইসবুক পেইজ