সরকার দলীয় সিন্ডিকেটের কারণে পেঁয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্য বেড়েই চলেছে

প্রকাশিত: 11:43 PM, November 18, 2019

সরকার দলীয় সিন্ডিকেটের কারণে পেঁয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্য বেড়েই চলেছে

সিলেট জেলা বিএনপি নেতৃবৃন্দ বলেছেন, দেশ পরিচালনায় সরকারের অযোগ্যতা, অদক্ষতা ও অবহেলার কারণে দেশে ভয়াবহ পেঁয়াজ সংকট দেখা দিয়েছে। সরকারদলীয় সিন্ডিকেটের কারণ শুধু পেঁয়াজ নয়, সব ধরনের নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতি রোধ করা সম্ভব হচ্ছেনা। চালসহ অন্যান্য জিনিসপত্রেরও দাম দ্রুত গতিতে বেড়েই চলেছে। অথচ সরকার বলছে, সারাদেশে চালের পর্যাপ্ত মজুদ রয়েছে। চালের আমদানিও নাকি গতবছরের এই সময়ে তুলনায় বেশি। পাইকারি ও খুচরা বাজারেও সরবারহ স্বাভাবিক। কোথাও চালের কোন ঘাটতি বা সঙ্কট নেই। তারপরও চালের দাম বাড়ছে কেন? কারণ, পেঁয়াজ কেলেঙ্কারিতে জড়িতদের বিরুদ্ধে সরকার কোন ব্যবস্থা না নেয়ায় চালের মজুদদাররা সরকারের কতিপয় এমপি-মন্ত্রী-ব্যবসায়ীর মদদে বেপরোয়া হয়ে উঠেছে।
পেঁয়াজের সঙ্গে চালের দামও সিন্ডিকেটররা পাল্লা দিয়ে বাড়াচ্ছে। সরকার জনগণের ভোটে নির্বাচিত নয় বিধায় জনগণের প্রতি তাদের কোন দায়বদ্ধতা নেই। এজন্য সরকার পেঁয়াজ সহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্র্ব্যমুল্যের উর্ধ্বগতি রোধ করতে ব্যার্থতার পরিচয় দিচ্ছে। অবিলম্বে পেঁয়াজ সহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্য নিয়ন্ত্রণ, ষড়যন্ত্রমূলক মামলায় কারান্তরীণ বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি এবং তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দেয়া ফরমায়েসী সাজা ও ষড়যন্ত্রমুলক মামলা সমুহ বাতিল করার জন্য সরকারের প্রতি জোর দাবী জানান তারা।
সোমবার বিকেলে বিএনপির কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে পেঁয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের অস্বাভাবিক মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে, বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি এবং তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দেয়া সাজা বাতিল ও ষড়যন্ত্রমূলক মামলা প্রত্যহারের দাবীতে সিলেট জেলা বিএনপি আয়োজিত বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা উপরোক্ত কথা বলেন। জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কামরুল হুদা জায়গীরদারের সভাপতিত্বে নগরীর রেজিস্টারী মাঠে অনুষ্ঠিত বিক্ষোভ সমাবেশে বিএনপি অঙ্গ ও সহযোগি সংগঠনের সকল পর্যায়ের বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।
জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য মাহবুবুর রব চৌধুরী ফয়সলের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত এবং বিএনপি নেতা আকবর আলীর পবিত্র কুরআন তেলাওয়াতের মধ্য দিয়ে সমাবেশে অন্যান্যের মধে বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেনÑ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য আশিক উদ্দিন চৌধুরী, আলী আহমদ, অধ্যাপিকা সামিয়া বেগম চৌধুরী, ফখরুল ইসলাম ফারুক, এডভোকেট এমরান আহমদ চৌধুরী, নাজিম উদ্দিন লস্কর, জেলা আহ্বায়ক কমিটির সদস্য ও জেলা যুবদলের আহ্বায়ক সিদ্দিকুর রহমান পাপলু, জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য মাজহারুল ইসলাম ডালিম, আবুল কাশেম, শামীম আহমদ ও আহমেদুর রহমান চৌধুরী মিলু, জেলা বিএনপির সাবেক সহ-সভাপতি একেএম তারেক কালাম, জেলা শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহমান, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম আহ্বায়ক মওদুদুল হক মওদুদ, জেলা যুবদলের সদস্য সচিব মকসুদ আহমদ, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি আলতাফ হোসেন সুমন, মহানগর ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক ফজলে রাব্বী আহসান ও জেলার ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন নাদিম প্রমুখ। -বিজ্ঞপ্তি

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আমাদের ফেইসবুক পেইজ