সিলেটে ডা. মঈনের পর এবার রুহুল আমিনের পরিবার পাচ্ছে ৫০ লক্ষ টাকা!

প্রকাশিত: ৪:৫৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৬, ২০২০

সিলেটে ডা. মঈনের পর এবার রুহুল আমিনের পরিবার পাচ্ছে ৫০ লক্ষ টাকা!

 

নিজস্ব প্রতিনিধি :: সিলেটে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া চিকিৎসক মঈন উদ্দিনের পরিবার সরকারি অনুদান পাওয়ার পর এবার সে পরিমাণ অনুদান পেতে যাচ্ছেন নার্সিং কর্মকর্তা রুহুল আমিনে পরিবার। এ বিষয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর নির্দেশনা মোতাবেক ফাইল প্রসেসিংয়ের কাজ চলছে।

করোনা রোগীদের সেবা দিতে গিয়ে কোভিট-১৯-এ আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণকারী দেশের প্রথম পুরুষ নার্সিং কর্মকর্তা সিলেট ডা. শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের রুহুল আমিনের পরিবারের কাছে আজ সোমবার ‘মোমেন ফাউন্ডেশন’র পক্ষ থেকে ২ লক্ষ টাকার সঞ্চয়পত্রের চেক তুলে দেয়া হয়।

এ উপলক্ষ্যে আয়োজিত ভার্চ্যুয়াল অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও সিলেট-১ আসনের সাংসদ ড. এ কে আব্দুর মোমেন বলেন, ‘করোনাকালে মহামারি আক্রান্ত রোগীদের সেবা দিতে গিয়ে, করোনার সময় সম্মুখযুদ্ধে যারা মৃত্যুরবরণ করেছেন তাদের সাহায্যার্থে এগিয়ে এসেছে সরকার। সিলেটের চিকিৎক মঈন উদ্দিনের পরিবার পেয়েছেন ৫০ লক্ষ টাকা। নার্সিং কর্মকর্তা রুহুল আমিনের ফাইলও যদি প্রসেসিং করা হয় তার পরিবারও এই পরিমাণ অনুদান পাবেন।’

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, মরহুম রুহুল আমিনের ফাইল প্রসেসিংয়ের জন্য ইতোমধ্যে বাংলাদেশ নার্সেস এসোসিয়েশন (বিএনএ) সিলেট শাখার সাধারণ সম্পাদক ইসরাইল আলী সাদেককে দায়িত্ব প্রদান করা হয়েছে।

এ বিষয়ে ইসরাইল আলী সাদেক বলেন, ইতোমধ্যে ফাইলটি সিলেট থেকে স্বাস্থ্যমন্ত্রণালয়ে প্রেরণ করা হয়ে গেছে। রুহুল আমিনের পরিবার যাতে দ্রুত এ অনুদান পায় সে জন্য পররাষ্ট্রমন্ত্রীর জোর সুপারিশ রয়েছে। আশা করছি- রুহুল আমিনের পরিবার শিগগিরই সরকারি এ অনুদান পেয়ে যাবে।

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৯ মে রাত সোয়া ১০টার দিকে মারা যান সিলেট শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের নার্সিং কর্মকর্তা (ব্রাদার) রুহুল আমিন।

এর আগে ১৫ এপ্রিল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত অবস্থায় মারা যান সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মেডিসিনের সহকারী অধ্যাপক মঈন উদ্দীন। গত ৫ এপ্রিল তার শরীরে করোনাভাইরাস ধরা পড়ে। অবস্থার অবনতি ঘটলে ৭ এপ্রিল তাকে সিলেট নগরীর শহীদ শামসুদ্দিন হাসপাতালের করোনা ইউনিটে আইসোলেশনে রাখা হয়। সেখান থেকে পরবর্তী সময়ে পরিবারের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী তাকে ঢাকায় কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। সেখানেই তিনি গত ১৫ এপ্রিল শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।
পরবর্তীতে তাঁর স্ত্রীর আবেদনের প্রেক্ষিতে গত আগস্টে সরকারি অনুদানের ৫০ লক্ষ টাকা পায় ডা. মঈন উদ্দিনের পরিবার।

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

আমাদের ফেইসবুক পেইজ