সিলেটে রবীন্দ্রনাথ শতবর্ষ স্মরণোৎসব : আমি স্তম্ভিত!

প্রকাশিত: ৫:১২ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৮, ২০১৯

সিলেটে রবীন্দ্রনাথ শতবর্ষ স্মরণোৎসব : আমি স্তম্ভিত!

ফজলুর রহমান : খুব সম্ভবত পদাধিকার বলে “সিলেটে রবীন্দ্রনাথ শতবর্ষ স্মরণোৎসব “উদযাপন উৎসবের একখানা দাওয়াতনামা আমার অফিসে পৌঁছেছে।এমন ও হতে পারে এই উদযাপন পরিষদে সম্পৃক্ত কোন সুহৃদ আমাকে স্মরণ করেছেন। এই জন্য উনাদেরকে অফুরন্ত ধন্যবাদ।আমি স্তম্ভিত এই কার্ডে সদস্য সচিব হিসাবে আরিফুল হক চৌধুরীর নাম দেখে!এই স্মরণোৎসব তো সিটি করপোরেশনের উদ্যোগে হচ্ছে না?আমি নিজেকে নিজে প্রশ্ন করি বৃহত্তর সিলেটে আবুল মাল আব্দুল মুহিত সাহেবের মতো গুনীজনের সাথে সদস্য সচিব হওয়ার মত কোন শিক্ষাবিদ কিংবা রবীন্দ্রনাথ প্রেমী কি পাওয়া যায়নি? নাকি জনাব মাল সাহেবের ইচ্ছায় এই দুষ্কর্ম সংগঠিত হয়েছে?

আপনারা আমার সংগে দ্বিমত পোষন করতেই পারেন।নাগরিক হিসেবে মত প্রকাশের অধিকার নি:শ্চয়ই আমার আছে। জনাব মাল সাহেব আ’লীগের তৃণমূলের কর্মী নন। জননেত্রী শেখ হাসিনা উনাকে যোগ্যতার ভিত্তিতেই সম্মান জানিয়ে দুইবার অর্থমন্ত্রী বানিয়েছেন। এর অর্থ এই নয় যে, তিনি এই দূর্বলতার সুযোগ নিয়ে সিলেটের মানুষকে উপহাস করবেন? আপনারা ভিডিও ক্লিপ এ আরিফুল হকের বক্তব্য শুনলে রবীন্দ্রনাথ সম্পর্কে তার জ্ঞানের পরিধি যাচাই করতে পারবেন।(আ হ চৌ বলেছে, রবীন্দ্রনাথ নাকি বাংলাদেশের সিলেট ছাড়া আর কোন জেলাতেই আসেননি।)

বিগত মেয়র নির্বাচনের আগে সাংবাদিক ভাইয়েরা জনাব মাল সাহেবকে প্রশ্ন করেছিলেন মেয়র প্রার্থী হিসেবে কে ভাল? উনার জবাব ছিল কামরান আরিফ দুজনই ভাল! আওয়ামীলীগ সরকারের একজন অর্থমন্ত্রী হিসাবে এই জবাব দেওয়া কি উচিত হয়েছিল? অথচ বি এন পির আমলে মেয়র কামরানকে পাশ কাটিয়ে তৎকালীন অর্থমন্ত্রী আরিফকে নগর উন্নয়নের দায়িত্ব দিয়ে কার্যত মেয়র কামরানকে অপমানিত করেছিলেন।

তৃণমূলের একজন কর্মী হিসাবে আমি মনে করি সিলেটবাসী এবং আওয়ামী পরিবারের আমার প্রিয় সহযোদ্ধা ভাইবোন সকলে মিলে এই অনুষ্ঠান বয়কট করা উচিত।আমরা না গেলে ও হল ভর্তি শ্রোতা দর্শকের অভাব হবেনা।তাই বলে আ’লীগের একজন সুবিধাভোগী মানুষ সমস্ত আওয়ামী পরিবারকে এভাবে বারংবার উপহাস করবে বেইজজত করবেন- এমনটা মেনে নিতে পারছিনা। উনি মহাজ্ঞানী মহাগুনী বলে তার এই মহাভুলের প্রতিবাদ ও করতে পারবনা?

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী উনাকে ভালবাসেন,উনি প্রগতিশীল ঘরানার মানুষ,তাই বলে এটুকুকে পুঁজি করে সিলেট আওয়ামী পরিবারকে অপমানিত করবেন? এই অধিকার উনাকে কে দিয়েছে?তার ভয়ে আমরা কেউ মুখ খুলবনা?

প্রিয় সহযোদ্ধা ভাইয়েরা আমার লিখায় যদি নুন্যতম যুক্তি থাকে তাহলে দয়া করে শেয়ার করুন ,বয়স ভীমরতির প্রতিবাদ করুন।

লেখক : ফজলুর রহমান, উপজেলা চেয়ারম্যান, ছাতক।সাবেক সাধারণ সম্পাদক, ছাতক উপজেলা আওয়ামী লীগ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আমাদের ফেইসবুক পেইজ