হারাম আয়ে অর্জিত খাদ্য হারাম হয়ে যায়

প্রকাশিত: ১২:২২ পূর্বাহ্ণ, এপ্রিল ২, ২০২১

হারাম আয়ে অর্জিত খাদ্য হারাম হয়ে যায়

মুহম্মাদ ওমর ফারুক

যারা দুর্নীতির মাধ্যমে অর্থ অর্জন করে তাদের আয় পুরোপুরিভাবে হারাম। হারাম আয়ে অর্জিত খাদ্যও হারাম হয়ে যায়। আল্লাহতায়ালা ইরশাদ করেন, ‘হে মুমিনগণ! আল্লাহ তোমাদের জন্য উৎকৃষ্ট যেসব বস্তু হালাল করেছেন সেগুলোকে তোমরা হারাম কোর না এবং সীমালঙ্ঘন কোর না। নিশ্চয়ই আল্লাহ সীমালঙ্ঘনকারীকে পছন্দ করেন না। আল্লাহ তোমাদের যে হালাল ও উৎকৃষ্ট জীবিকা দিয়েছেন তা থেকে খাও এবং ভয় কর আল্লাহকে, যাঁর প্রতি তোমরা মুমিন।’ সুরা মায়িদা আয়াত ৮৭-৮৮। রসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ‘হালাল সম্পদ কামাই করা ফরজের পর ফরজ।’ এ হাদিস আল্লামা বায়হাকি হজরত আবদুল্লাহ বিন মাসউদ (রা.) থেকে বর্ণনা করেছেন। রসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ‘সত্যবাদী আমানতদার ও বিশ্বাসী ব্যবসায়ী ব্যক্তি হাশরের দিন নবী, সিদ্দিকি ও শহীদদের দলে থাকবে।’ তিরমিজি। সৎ ব্যবসায়ীদের ইসলাম কতটা গুরুত্ব দেয় হাদিসটি তারই প্রমাণ। হজরত আবু হুরায়রাহ (রা.) থেকে বর্ণিত, রসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ‘আল্লাহ অতীব পূতপবিত্র। তিনি কেবল পবিত্র বস্তুই কবুল করেন। আর এ ব্যাপারে তিনি মুমিনদের ওই আদেশই করেছেন যা দ্বারা তিনি রসুলদের আদেশ করেছেন। তিনি বলেছেন হে রসুলগণ! আপনারা পবিত্র হালাল মাল খাবেন এবং নেক আমল করবেন। এ একই আদেশ মুমিনদের করতে গিয়ে তিনি বলেন হে মুমিনগণ! আমার দেওয়া পবিত্র হালাল রিজিক খাও। এরপর তিনি এমন এক ব্যক্তির কথা উল্লেখ করলেন যে দূরদূরান্তে সফর করছে। তার মাথার চুল এলোমেলো, শরীরে ধুলাবালি। এ অবস্থায় সে উভয় হাত আসমানের দিকে উঠিয়ে কাতর স্বরে হে প্রভু, হে প্রভু বলে ডাকছে। কিন্তু তার খাদ্য হারাম, পানীয় হারাম ও পরিধেয় বস্ত্র হারাম। এ লোকের দোয়া কীরূপে গৃহীত হবে?’ মুসলিম। হজরত জাবির (রা.) থেকে বর্ণিত, রসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ‘যে দেহের গোশত হারাম মাল দ্বারা গঠিত তা বেহেশতে প্রবেশ করতে পারে না। হারাম মালামালে গঠিত প্রতিটি দেহের জন্য দোজখই অধিক উপযুুক্ত।’ দারেমি। হজরত ইবনে ওমর (রা.) থেকে বর্ণিত, রসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ইরশাদ করেছেন, ‘যে ব্যক্তি ১০ মুদ্রায় একটি কাপড় খরিদ করল যার মধ্যে একটি মুদ্রা অবৈধ উপায়ে অর্জিত, তার নামাজ কবুল হবে না। যে পর্যন্ত ওই কাপড় তার পরিধানে থাকবে।’ আহমদ। হে আল্লাহ! আপনি সর্বশক্তিমান, আপনি করুণাময়, আপনি আমাদের হারাম থেকে দূরে রেখে হালাল দ্বারাই যথেষ্ট করুন এবং গায়রুল্লাহ থেকে বিমুখ করে আপনার অনুগ্রহ দ্বারা ধন্য করুন। মহান আল্লাহ আমাদের মহাগ্রন্থ কোরআনের বরকত দান করুন। দুর্নীতির পরিণাম ভয়াবহ। দুর্নীতির কারণে পরকালে দোজখের আগুনে জ্বলতে হবে। এ গুনাহর কাজ থেকে আল্লাহ আমাদের হেফাজত করুন।

লেখক : ইসলামবিষয়ক গবেষক।
সুত্র : বাংলাদেশ প্রতিদিন

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

MonTueWedThuFriSatSun
     12
24252627282930
31      
       
       
1234567
2930     
       

আমাদের ফেইসবুক পেইজ