১৪ সেলাই নিয়েও ব্যাট হাতে মাশরাফির অবদান

প্রকাশিত: ৩:৫৪ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৩, ২০২০

১৪ সেলাই নিয়েও ব্যাট হাতে মাশরাফির অবদান

স্পোর্টস ডেস্ক :: হাতে ১৪ সেলাই, তবুও তিনি মাঠে নামলেন টস করলেন। টস হেরে ব্যাটিংয়েও নামলেন। দলের বিপর্যয়ে ব্যাট হাতেও দেখা যায় তাকে। নিজে রান নিতে না পারলেও অপর পাশে থাকা ব্যাটসম্যানকে সহযোগিতা করেছেন দারুণ ভাবে। মাশরাফি-শাদাব খান জুটিতে আসে ৪০ রান। এতে প্রতিপক্ষের সামনে দাঁড় করিয়েছে ১৪৫ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোরও।

বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ প্রিমিয়র লিগের এলিমিনেটর ম্যাচে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের মুখোমুখি হয় ঢাকা প্লাটুন। টস জিতে স্বাগতিকদের ব্যাটিংয়ে পাঠায় চট্টগ্রামের কাপ্তান মাহমুদউল্লাহ। টস হেরে ব্যাট করতে নেমে মোটেও ভালো শুরু করতে পারেনি ঢাকা।

দলীয় ১৫ রানে ওপেনার তামিমের বিদায়ের পর নিয়মিত আসা-যাওয়ায় ব্যাস্ত থাকে বাকি ব্যাটসম্যানরা। তামিমি (৩), বিজয় (০), লুইস রিস (০), মেহেদী হাসান (৭), জাকির আলী (০), মুমিনুল (৩১) ও আসিফ আলী (৫) রানে আউট হন।

অষ্টম উইকেট জুটিতে ঢাকাকে খাদের কিনারা থেকে টেনে তুলেন শাদাব খান ও থিসারা পেরেরা। এই দুই বিদেশীর জুটিতে আসে ৪৪ রান। তবে ব্যাক্তিগত ২৫ রানে পেরেরা আউট হলে কঠিন বিপদে পড়ে ঢাকা। এমন সময় ১৪ সেলাই নিয়েই ব্যাট হাতে নেমে পড়েন ঢাকা কাপ্তান মাশরাফি বিন মুর্তজা।

শাদাব খানের সঙ্গে জুটি বাঁধেন ৪০ রানের। ১৭.৫ ওভারে মাঠে নামলেও মাত্র ২ বল খেলেন মাশরাফি। নিজে কোনো রান না করতে পারলেও বেশ কিছু ডাবল ও সিঙ্গেল নিয়ে দলের স্কোর বোর্ডটা বড় করতে সহযোগীতা করেন তিনি। শাদাক ৪১ বলে ৬৪ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন। আর মাশরাফি ছিলেন শূন্য রানে অপরাজিত।

শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৪৪ রান করে ঢাকা। এতে চট্টগ্রামের সামনে দাঁড়ায় ১৪৫ রানের চ্যালেঞ্জিং লক্ষ্য।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আমাদের ফেইসবুক পেইজ