ছাতকে রেলওয়ে নিারপত্তা প্রহরী হত্যায় আটক আসামীর স্বীকারোক্তি

প্রকাশিত: ৭:০৮ অপরাহ্ণ, জুলাই ৯, ২০২০

ছাতকে রেলওয়ে নিারপত্তা প্রহরী হত্যায় আটক আসামীর স্বীকারোক্তি

 সুনামগঞ্জ প্রতিনিধিঃ ছাতকে রেলওয়ে নিারপত্তা প্রহরী মো. ফখরুল আলম হত্যায় জড়িত নুর আলী (৪০) নামের এক আসামী সুনামগঞ্জের বিজ্ঞ আদালতে স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দি দিয়েছে। সে উপজেলার নোয়ারাই ইউনিয়নের জয়নগর গ্রামের মৃত রহমত আলীর পুত্র। বুধবার রাতে সহকারী পুলিশ সুপার বিল্লাল হোসেনের উপস্থিতিতে স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমকে হত্যার বিষয়ে এই তথ্য প্রকাশ করা হয়। এরআগে মঙ্গলবার রাতে থানা পুলিশের এক বিশেষ অভিযানে জয়নগর গ্রাম থেকে হত্যায় জড়িত ওই আসামীকে আটক করা হয়। তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে চোরাই মালামাল ক্রয়-বিক্রয়ের সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে সিলেট শহরের চাদনীঘাট এলাকা থেকে মিল্লাত হোসেন ও মো. পরান নামে আরও দু’জনকে আটক করা হয়। এসময় তাদের হেফাজতে থাকা রেলওয়ের কিছু চোরাই মালামালও উদ্ধার করে পুলিশ। বুধবার আটক আসামীদের সুনামগঞ্জের বিজ্ঞ আদালতে হাজির করা হলে আসামীরা হত্যায় জড়িত থাকার বিষয়ে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়। তবে মামলার তদন্তের স্বার্থে হত্যার রহস্যের বিষয়ে বিস্তারিত প্রকাশ করা যাচ্ছে না বলে জানিয়েছে পুলিশ। প্রসঙ্গত, গত ২৯জুন রাতে ছাতক রেলওয়ের গোডাউনে নিরাপত্তা প্রহরী ফখরুল আলমকে অজ্ঞাতনামা দুস্কৃতিকারীরা নৃশংসভাবে হত্যা করে লোহা জাতীয় মালামাল নিয়ে যায়। পরদিন থানা পুলিশ নিহত নিরাপত্তা রক্ষীর মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মো. হাবিবুর রহমান (পিপিএম) বলেন, ফখরুল হত্যা মামলার তদন্তে অগ্রগতি হয়েছে, তবে এই মুহুর্তে তদন্তের স্বার্থে এর চেয়ে বেশী কিছু বলা যাচ্ছে না।