বঙ্গভবনের দরবার হলে রাষ্ট্রপতির ঈদের নামাজ আদায়

প্রকাশিত: ৩:৫৯ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১, ২০২০

বঙ্গভবনের দরবার হলে রাষ্ট্রপতির ঈদের নামাজ আদায়

অনলাইন ডেস্ক :
করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে রোজার ঈদের মত এবারের কোরবানির ঈদের নামাজও বঙ্গভবনের দরবার হলে পড়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

শনিবার সকালে পরিবারের কয়েকজন সদস্য এবং ‘অতি গুরুত্বপূর্ণ’ পদস্থ কর্মকর্তাদের নিয়ে তিনি স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঈদুল আজহার নামাজ পড়েন তিনি।

কোভিড-১৯ মহামারীর প্রাদুর্ভাবের কারণে চলমান বিশ্বব্যাপী সঙ্কটের প্রেক্ষাপটে রাজধানীর জাতীয় ঈদগাহ ময়দানে সর্বস্তরের মানুষের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে সচরাচর যে ঈদের নামাজ হয়ে থাকে এর আগে তা বাতিল করা হয়।-খবর বাসসের

রাষ্ট্রপতি বঙ্গভবনের দরবার হলে তার পরিবারের সদস্যবৃন্দ এবং কিছু গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তাদের সঙ্গে ঈদের নামাজ আদায় করেন তিনি।

রাষ্ট্রপতির প্রেস সচিব জয়নাল আবেদীন জানান, সকাল সাড়ে ৮টায় এই ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়। বঙ্গভবন জামে মসজিদের পেশ ইমাম মুফতি মাওলানা সাইফুল কবির জামাত পরিচালনা করেন।

নামাজ শেষে বাংলাদেশের শান্তি, অগ্রগতি এবং দেশের জনগণের পাশাপাশি মুসলিম উম্মাহর কল্যাণে মহান রাব্বুল আলামিনের রহমত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়।

যারা মারাত্মক কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন; তাদের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা এবং সেই সঙ্গে দেশ ও বিশ্ব জুড়ে করোনা রোগীদের দ্রুত সুস্থতা কামনা করে বিশেষ দোয়া করা হয়।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারের সদস্যদের বিদেহী আত্মার, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্টের ভয়াল রাতে অন্যান্য শহীদদের এবং যারা দেশের স্বার্থে বিভিন্ন গণতান্ত্রিক আন্দোলনে জীবন উৎসর্গ করেছেন বিশেষত একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে যারা শহীদ হয়েছেন তাদের আত্মার মাগফিরাত ও শান্তি কামনা করে দোয়া করা হয়।

নামাজ শেষে রাষ্ট্রপতি হামিদ তার পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে বঙ্গভবনে সময় কাটান। তবে এবারে দেশের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ, বিদেশি কূটনীতিক বা অতিথিদের উপস্থিতিতে বিভিন্ন সুস্বাদু খাবার পরিবেশন বা আনুষ্ঠানিক শুভেচ্ছা বিনিময়ের কোন আয়োজন ছিল না।