ছাতকের জনতা উচ্চ বিদ্যালয় ব্রিটিশ কাউন্সিলের ফুল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যাওয়ার্ড লাভ

প্রকাশিত: ১১:৩৯ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১০, ২০২০

ছাতকের জনতা উচ্চ বিদ্যালয় ব্রিটিশ কাউন্সিলের ফুল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যাওয়ার্ড লাভ
সেলিম মাহবুব, ছাতক(সুনামগঞ্জ)
ছাতকের জনতা উচ্চ বিদ্যালয় ব্রিটিশ কাউন্সিলের ফুল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যাওয়ার্ড লাভ করেছে । ব্রিটিশ কাউন্সিল বাংলাদেশ কর্তৃক গত ২০ জুলাই ফুল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যাওয়ার্ড (ISA) ঘোষনা করা হয়। এতে বাংলাদেশের ২২টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে ব্রিটিশ কাউন্সিলের ফুল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যাওয়ার্ড  দেয়া হয়। এ ২২টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে জনতা উচ্চ বিদ্যালয় (কামরাঙ্গী) কানেকটিং ক্লাসরুম বিষয়ে কৃতিত্বপূর্ণ অবদান রাখার জন্য ব্রিটিশ কাউন্সিল বাংলাদেশ কর্তৃক ঘোষিত সর্বোচ্চ সম্মান সূচক পুরস্কার ফুল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যাওয়ার্ড (আইএসএ) লাভ করে। পারফর্মেন্স মূল্যায়ন কমিটির মাধ্যমে যাচাই বাছাই করে এ ফলাফল প্রকাশ করা হয়৷ এ কার্যক্রম শুরু হয় জুলাই ২০১৯ ইং হতে ২০২০ইং সনের মে মাস পর্যন্ত বিভিন্ন সময়ের করা প্রজেক্ট গুলোর মধ্যে ৮ আটটি প্রজেক্ট কার্যক্রম দিয়ে ব্রিটিশ কাউন্সিল বাংলাদেশে আবেদন করা হয়। ব্রিটিশ কাউন্সিল তার তত্ত্বাবধানে পর্যবেক্ষণ ও পর্যালোচনার পর ফুল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যাওয়ার্ড (ISA) ঘোষনা করে। জনতা উচ্চ বিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, ফুল অ্যাওয়ার্ড এর জন্য স্কুল আন্তর্জাতিক পার্টনার স্কুলের (ভারত, পাকিস্থান, নেপাল, আফগানিস্তান, ফিলিপাইন, ফ্রান্স , ইংল্যান্ড)সহ বিভিন্ন দেশের সাথে বিভিন্ন প্রজেক্ট কাজের অভিজ্ঞতা সারা বছর ধরে কার্যক্রম পরিচালনা করে ও শেয়ার করা হয়। কার্যক্রম সমুহ হল বাংলাদেশের ইতিহাস, সড়ক পথের নিরাপত্তা, ফুল বাগান ও তার ওষধি গুন, বিদ্যালয়ের সবুজ ক্যাম্পাস, বিশ্ব শিক্ষক দিবস, আমাদের সংস্কৃতি, বর্জ এর ব্যবহার,  বিজ্ঞান মেলাসহ বিভিন্ন কার্যক্রম সমগ্র স্কুল এবং পাঠ্যক্রমে নিহিত ছিল। স্কুল তার শিখনকে স্থানীয় কমিউনিটিতে প্রকাশ করে এবং পার্টনার স্কুলের সাথে প্রচলিত পদ্ধতিগুলোর তুলনা করে নিম্নের দক্ষতা অর্জন করে- শিক্ষকগণ তাদের পেশাগত উন্নয়নের ক্ষেত্রগুলো সনাক্ত করে, নিজেরা দক্ষতা অর্জন করে। বৈশ্বিক নাগরিক হিসাবে পার্টনার স্কুলের সাথে আন্তর্জাতিকভাবে মিথস্ক্রিয়ার মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা তাদের জীবনের জন্য দক্ষতা উন্নয়ন করে।  এ অ্যাওয়ার্ড লাভ করকে জনতা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রজেক্টের আন্তর্জাতিক কো-অর্ডিনেটর ও বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ কবিরুল ইসলাম। এ প্রসঙ্গে জনতা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও আইএসএ’র প্রজেক্টের আন্তর্জাতিক কো-অর্ডিনেটর মোহাম্মদ কবিরুল ইসলাম জানান, এ অ্যাওয়ার্ড পেতে প্রথমে ব্রিটিশ কাউন্সিলের সদস্য হয়ে স্কুল অ্যাম্বসেডরের মাধ্যমে বাংলাদেশসহ বহির্বিশ্বের পছন্দনীয় স্কুলগুলোর সাথে ব্রিটিশ কাউন্সিলের নিজস্ব ওয়েব সাইটের মাধ্যমে কানেক্টিং ক্লাসরুম সম্পর্কিত বিভিন্ন শিক্ষামূলক প্রজেক্ট নিয়ে শেয়ারিংয়ে অংশগ্রহণ করতে হয়৷ সন্তোষজনক পারফর্মেন্স ও ফিডব্যাক শেষে প্রথম রাউন্ডে ফাউন্ডেশন ও ইন্টারমিডিয়েট অ্যাওয়ার্ডের জন্য আবেদন করতে হয়৷ এ রাউন্ড সন্তোষজনক সমাপ্তি শেষে পুনরায় কমপক্ষে আটটি প্রজেক্ট শেয়ারিংয়ের মাধ্যমে ফুল অ্যাওয়ার্ডের জন্য একইভাবে তাদের নিজস্ব ফরমে আবেদন করতে হয়। সেই প্রেক্ষিতে জনতা উচ্চ বিদ্যালয় মোট ২০ টি প্রজেক্টের মধ্যে ৮ টি প্রজেক্ট আওয়্যার্ড প্রাপ্তির জন্য ব্রিটিশ কাউন্সিলে জমা দেন। যাচাই-বাছাই কাজ শেষে এ বিদ্যালয়কে সম্মানসূচক ফুল অ্যাওয়ার্ডে ভূষিত করা হয়। এক প্রতিক্রিয়ায় বিদ্যালয়ের সভাপতি আলহাজ্ব আব্দুল বারী তোহা মিয়া জানান, এই অ্যাওয়ার্ড অর্জনে বিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষক, ম্যানেজিং কমিটির সদস্য ও  অভিভাবকবৃন্দ অত্যন্ত আনন্দিত ও গর্বিত। তিনি ব্রিটিশ কাউন্সিল স্কুলের এ্যাম্বাসেডর ও শিক্ষক কামাল উদ্দিনসহ ব্রিটিশ কাউন্সিল কর্তৃপক্ষের কাছে কৃত জ্ঞতা প্রকাশ করেন।##

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ