সুনামগঞ্জের রাধানগর গ্রামে আগুন লেগে ৭টি পরিবারের বসতঘর পুড়ে ছাই

প্রকাশিত: ১২:২৭ পূর্বাহ্ণ, মার্চ ৩১, ২০২০

সুনামগঞ্জের রাধানগর গ্রামে  আগুন লেগে ৭টি পরিবারের বসতঘর পুড়ে ছাই

 সুনামগঞ্জ প্রতনিধি :: সুনামগঞ্জ সদর উপজেলায় বৈদ্যুতিক সর্ট সার্কিট থেকে আগুন লেগে ৭টি পরিবারের বসতঘর গোয়ালঘরসহ ঘরের সব মালামাল সম্পূর্ণভাবে পুড়ে যায়। এতে প্রায় দশ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে সুনামগঞ্জ ফায়ার সার্ভিস সূত্রে জানা যায়। স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভির ডিফেন্স সূত্রে জানা যায় সোমবার রাত ৯টায় সদর উপজেলার গৌরারং ইউনিয়নের রাধানগর গ্রামের মোঃ ছমির উদ্দিনের ছেলে মোঃ আব্দুল কদ্দুছের ঘরে বৈদ্যুতিক সর্ট সার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটে। নিমিষেই আগুনের লেলিহান শিখা ছড়িয়ে পড়ে পাশের বাড়ির হাজী ছমির উদ্দিনের ছেলে নুরুল ইসলাম,আব্দুল করিম,আব্দুর রহমান ও মণির উদ্দিনের ছেলে মফিজুর রহমানের ঘরে। এতে বাড়ির লোকজনের আত্মচিৎকারে আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে এসে সুনামগঞ্জ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সকে খবর দিলে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের স্টেশন অফিসার নিউটর দাস তালুকদার ও ফায়ার সার্ভিসের টিম লিডার মোঃ আলি হায়দারের নেতৃত্বে দুটি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে গ্রামবাসী সহায়তায় দুই ঘন্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রনে আনতে সক্ষম হলেও ততক্ষসে ৭টি পরিবারের বসতঘর ও গোয়াল ঘরের সমস্ত আসবাবপত্রসহ মূল্যবান জিনিসপত্র পুড়ে ছাই হয়ে যায়। এতে প্রায় দশলাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে জানা যায়। এদিকে তাৎক্ষনিক খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন সুনামগঞ্জ জেলা যুবলীগের আহবায়ক ও সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খায়রুল হুদা চপল। তিনি ঘটনাস্থলে গিয়ে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের লোকজনের সাথে কথা বলেন এবং ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারগুলোকে সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন, সুনামগঞ্জ পৌরসভার সাবেক ভারপ্রাপ্ত মেয়র নুরুল ইসলাম বজলু সদর উপজেলা পরিষদ এর ভাইস চেয়ারম্যান এডভোকেট আবুল হোসেন। এ ব্যাপারে সুনামগঞ্জ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সকে খবর দিলে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের স্টেশন অফিসার নিউটর দাস তালুকদার আগুনের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান আমরা খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে গ্রামবাসীর সহায়তায় আগুন নিয়ন্ত্রনে আনতে সক্ষম হয়েছি। ##

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

আমাদের ফেইসবুক পেইজ