ফি ২৩০ টাকা আদায় ৪,৭৫০ টাকা : শাল্লায় একাদশ শ্রেণিতে অতিরিক্ত ভর্তি ফি

প্রকাশিত: ৮:০৯ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০

ফি ২৩০ টাকা আদায় ৪,৭৫০ টাকা : শাল্লায় একাদশ শ্রেণিতে অতিরিক্ত ভর্তি ফি

শাল্লা প্রতিনিধি :: শাল্লা উপজেলা সদরের একমাত্র শাল্লা সরকারি ডিগ্রী কলেজে ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে একাদশ শ্রেণির ভর্তি বাবদ শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত ফি আদায় করা হচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। কলেজ কর্তৃপক্ষ ভর্তি ফি আদায়ে শিক্ষাবোর্ডের নিদের্শনা না মেনে প্রকৃত ফি ২৩০ টাকার স্থলে ৪,৭৫০ টাকা আদায় করছেন।

অর্থাৎ নির্ধারিত ফি’এর চেয়ে প্রায় ২৩ গুণ ফি আদায় করা হচ্ছে। সিলেট শিক্ষাবোর্ডের সহকারী কলেজ পরিদর্শক আবুল কালাম আজাদ জানান, একাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী ভর্তির ক্ষেত্রে উপজেলা সদরে ১০০০, জেলা সদরে ২০০০ ও বিভাগীয় শহরে ৩০০০ টাকা নেবার নির্দেশনা রয়েছে। এর বেশি নিলে, কেন বেশি নিলেন ব্যখ্যা করতে হবে।

অথচ. শাল্লা কলেজে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তি বাবদ মানবিক ও বানিজ্য শাখায় ভর্তি ফি ৪,৫৫০ টাকা ও বিজ্ঞানে ৪,৭৫০ টাকা নির্ধারণ বিজ্ঞপ্তি টাঙানো হয়েছে। কলেজের পক্ষ থেকে স্থানীয় দুটি ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানে ভর্তির অর্থ আদায়ের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। শাল্লা উপজেলা পরিষদ মার্কেটের বকুল ফটো স্টুডিও এবং মধ্য বাজারের মেসার্স আরএন ফার্মিসিতে গিয়ে দেখা যায় দেয়ালে বিজ্ঞপ্তি টাঙানো রয়েছে কলেজে ভর্তির টাকা জমা নেবার।

এই দুই প্রতিষ্ঠানের প্রোপাইটর পংকজ কান্তি দাস ও মনোহর রায় বলেন- আমরা শাল্লা কলেজ কোড ঊওওঘ ১৩০০১০ এ টাকা পাঠাই এবং টাকাটা বিকাশের শিওর ক্যাশে চলে যায়। বিকাশের এজেন্টের সাথে কলেজের চুক্তি হয়েছে। টাকা পাঠালে শিক্ষার্থীর মোবাইলে ম্যাসেজ আসে। ম্যাসেজ নিয়ে শিক্ষার্থীরা কলেজে গেলে কলেজ কর্তৃপক্ষ উক্ত শিক্ষার্থীকে ভর্তি করে। কলেজ কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা মোতাবেক আমরা শিক্ষার্থী প্রতি মানবিক ও বানিজ্যে ৪,৫৫০ টাকা এবং বিজ্ঞানে ৪,৭৫০ টাকা করে কলেজ কোডে টাকা পাঠাচ্ছি।

জানা যায়, মানবিকে ৪৫০ শিক্ষার্থীর সিটের বিপরীতে ৪৫০ জন, বানিজ্যে ১৫০ শিক্ষার্থীর সিটের বিপরীতে ০৭ জন ও বিজ্ঞানে ১৫০ শিক্ষার্থীর সিটের বিপরীতে ৩৬ জন সহ মোট ৪৯৩ জনকে শাল্লা সরকারি ডিগ্রী কলেজে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির জন্য শিক্ষা বোর্ড থেকে নির্দেশনা দেওয়া হয়। ১৩ই সেপ্টেম্বর থেকে ভর্তি কার্যক্রম শুরু হয়ে ১৭-ই সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ভর্তি কার্যক্রম চলবে।

ভর্তির প্রথম দিন অর্থাৎ ১৩ই সেপ্টেম্বর ২৯৫ জন শিক্ষার্থী ভর্তি হয়েছে এই কলেজে। শাল্লার বিপ্লব রায় তার বোনকে (সুইটি রায়কে) শাল্লা ডিগ্রি কলেজে ভর্তির প্রথম পছন্দ দিয়েছিলেন। কিন্তু ওখানে ভর্তি ফি ৪৫০০ টাকা হওয়ায় তিনি পাশের ভাটি বাংলা কলেজে ৩০০০ টাকায় ভর্তি করিয়েছেন। এই অভিভাবক জানান, দিরাই-শাল্লার নামকরা বিবিয়ানা মডেল কলেজে শিক্ষার্থী ভর্তি ফি নেওয়া হচ্ছে বোর্ডের নির্ধারিত ১০০০ টাকা।

এ ব্যাপারে কথা বলার জন্য কলেজ অধ্যক্ষ আব্দুশ শহীদেও মুঠোফোনে কয়েকবার ফোন দিলেও তিনি ফোন রিসিভ করেন নি। কলেজের পদার্থ বিজ্ঞানের প্রভাষক মোজাম্মেল হক ব্যাখ্যা দিলেন ভর্তি ফি নেওয়া হচ্ছে ১০০০ টাকা, কলেজ উন্নয়ন ফি ১৫০০ টাকা এবং দ্বাদশ শ্রেণির সেশন ফি ২০০০ টাকা এই ৪৫০০ টাকা এবং বিজ্ঞান বিভাগের ক্ষেত্রে বিজ্ঞানগার ফি’ ২০০ টাকাসহ ৪৭০০ টাকা নেওয়া হচ্ছে।

কলেজ পরিচালনা কমিটির সভাপতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আল-মুক্তাদির হোসেন বলেন, আমাকে আরেকজন সাংবাদিক ফোন দিয়েছিলেন, আমি অধ্যক্ষকে ফোন দিয়েছিলাম। তিনি জানিয়েছেন, সামনে এসে বিষয়টি বুঝিয়ে বলবেন। যদি অতিরিক্ত ফি নেওয়া হয়, ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ