পরােপকারী সাদেকের কথা ছড়িয়ে পড়েছে দেশের হাসপাতালগুলােতে ‍

প্রকাশিত: ১২:৩৮ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১, ২০২০

পরােপকারী সাদেকের কথা ছড়িয়ে পড়েছে দেশের হাসপাতালগুলােতে ‍

নিজস্ব প্রতিবেদক

নার্সিং পেশাটি জনগণের স্বাস্থ্য পরিচর্যা ও স্বাস্থ্য সচেতনতামূলক কর্মকাণ্ডের সাথে সম্পৃক্ত। এ পেশার মাধ্যমে ব্যক্তিগত, পারিবারিক কিংবা সামাজিকভাবে কোন রোগী বা ব্যক্তির স্বাস্থ্য পুণরুদ্ধার এবং জীবনযাত্রার গুরুত্বতা তুলে ধরা হয়। এ পেশার সাথে সম্পৃক্ত, দক্ষ কিংবা প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ব্যক্তি নার্স বা সেবিকা নামে পরিচিত। প্রধানতঃ নারীরাই নার্সিং পেশার সাথে জড়িত থাকেন। তবে এখন অনেক পুুুরুষও এই পেশার সাথে যুুুুক্ত হচ্ছেন। এমনই একজন নার্সিং কর্মকর্তা ইসরাইল আলী সাদেক, যিনি তার গন্ডির বাইরেও সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে উপকার করে যাচ্ছেন। ইতােমধ্যে তার পরােপকারীতার কথা ছড়িয়ে পড়েছে দেশের হাসপাতালগুলােতে।

ইসরাইল আলী সাদেক বাংলাদেশ নার্সেস এসােসিয়েশন সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল শাখার সাধারণ সম্পাদক। এইতাে সেদিন (২৬ অক্টােবর) সিলেট-১ আসনের সংসদ সদস্য পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মােমেনও তার ওপর ভরসা রেখে কথা বলেন। গত ২৯ মে করােনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হওয়া নার্সিং কর্মকর্তা রুহুল আমিন পরিবারের সরকারী অনুদানের ৫০ লাখ টাকার ফাইল প্রসেসিং করার তাগিদ দেন সাদেককে। এটাকে তার বিশ্বাস ও সততার সঙ্গে তুলনা করছেন সংশ্লিষ্টরা। শুধু কি তাই? সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়ানাে ও তাদের চিকিৎসা সেবায় সাদেকের অনেক অবদান ভােলার নয়। ক’দিন আগে সরেজমিন ওসমানী হাসপাতালে দেখা যায়, এক দম্পতি চিকিৎসার জন্য তার সহযােগিতা চান। এসময় তিনি নার্সদের নিয়ে একটি সেমিনারে থাকলেও দ্রুত চিকিৎসক দেখানাের ব্যবস্থা করেন। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, এমন কেউ নেই যে বা যারা হাসপাতালে গিয়ে তার কাছে সহযােগিতা চেয়ে খালি হাতে ফিরেছেন। প্রতিটি মানুষের বিপদে ও সাহায্যে এগিয়ে আসতে তিনি কার্পন্য করেন না। বিশেষ করে করােনাকালীন মহামারিতে মানুষ যখন ঘরবন্দি ঠিক তখন জীবনের ঝুঁকি নিয়ে তিনি সহকর্মী অনেকের বাড়িতে গিয়ে খােঁজখবর নেন।

ইসরাইল আলী সাদেক একজন দক্ষ সংগঠক হিসেবে ব্যাপক খ্যাতি অর্জন করেছেন। ২৩ অক্টােবর আমিন হােসেন নামের একজন তার ফেসবুক আইডিতে লিখেন, “নার্স ভাই বোনদের যে কোন সমস্যায় সবার প্রথম হাত বাড়িয়ে দেয়া মানুষটির নাম ইসরাইল আলী সাদেক।নার্সিং প্রফেশনের একজন আদর্শিক নেতা আপনি।সকল বাধা-বিপত্তিকে উপেক্ষা করে নার্সিং সেক্টরের উন্নতিকল্পে আপনার কর্ম স্মরনীয় হয়ে থাকবে যুগ যুগ ধরে”। তার এই তথ্যটি ধ্রুব সত্য। কিছুদিন আগে সিলেট ও ঢাকায় তাদের সংগঠনটির উদ্যােগে সভাপতি শামীমা নাসরিন ও ইসরাইল আলী সাদেকের নেতৃত্বে অসুস্থ্য অনেক নার্সের পাশে দাঁড়ানাে হয়। এছাড়াও মানবিক কাজে দেশব্যাপী নানা উদ্যােগেও সাদেকের ভুমিকা অপরিসীম। ইতােমধ্যে স্বেচ্ছাসেবী নার্সেস সংগঠন গঠনের উদ্যোগ গ্রহণ করে প্রশংসিত হয়েছেন তিনি। সারা দেশে কর্মরত এবং সেবার মানসিকতাসম্পন্ন নার্সিং কর্মকর্তাগনকে একটি প্লাটফর্মে নিয়ে এসে সকল ক্রান্তিলগ্নে সেবামূলক কাজের মাধ্যমে পেশার সম্মান ও মর্যাদা বৃদ্ধির চেষ্টা শুরু করা হয়েছে। তার আহবানে দেশের অনলাইন এক্টিভিস্ট, সরকারি-বেসরকারি নার্সিং কর্মকর্তা, নার্সিং শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অভাবনীয় সাড়া পাওয়া গেছে। প্রাথমিক পর্যায়ে স্বেচ্ছাসেবীগনকে নিয়ে আলাপ আলোচনার মাধ্যমে সংগঠনের কার্যক্রম ও করনীয় সম্পর্কিত সিদ্ধান্তবলী নেয়া হবে বলে জানা গেছে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সংবাদ অনুসন্ধান ক্যালেন্ডার

আমাদের ফেইসবুক পেইজ