মান্নারগাঁও ইউপি নির্বাচন : আওয়ামীলীগের মনোয়ন পেতে চান অসিত কুমার দাস

প্রকাশিত: ৭:৩৭ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৮, ২০২১

মান্নারগাঁও ইউপি নির্বাচন : আওয়ামীলীগের মনোয়ন পেতে চান অসিত কুমার দাস

 

দোয়ারাবাজার প্রতিনিধিঃ
আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দোয়ারাবাজার উপজেলার ৪নং মান্নারগাঁও ইউনিয়ন থেকে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন পেতে চান অসিত কুমার দাস। তিনি একই ইউনিয়নের কামারগাঁও গ্রামের প্রয়াত অতুল চন্দ্র দাসের সন্তান। তিনি চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হয়ে ইউনিয়নের জনগণের কল্যাণে কাজ করার মানসে নৌকা প্রতীকের মনোয়ন প্রত্যাশী হিসেবে মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন।
অসিত কুমার দাসের সমর্থকরা জানান, অসিত কুমার দাস ঐতিহ্যবাহী রাজনৈতিক পরিবারের সন্তান। পারিবারিক রাজনৈতিক ঐতিহ্যের কারণে এলাকায় তার নিজস্ব ভোট ব্যাংক রয়েছে। তার পরিবার ব্রিটিশ আমল থেকে এখনোব্দি এলাকার রাজনীতিতে নেতৃত্ব দিয়ে আসছে। এলাকার সার্বিক উন্নয়নে এই পরিবারের অবদান অনস্বীকার্য। অসিত কুমার দাসের বাবা ও মা দুজনেই জনপ্রতিনিধি ছিলেন। তার বাবা প্রয়াত অতুল চন্দ্র দাস ৬ বারের ইউপি সদস্য ছিলেন এবং মা অঞ্জলী রানী দাস সংরক্ষিত আসনের ইউপি সদস্য ও দোয়ারা থানা কাউন্সিলের সদস্য ছিলেন। অসিত কুমার দাস ছাত্রজীবন থেকে এখনোব্দি আওয়ামীলীগের রাজনীতিতে সক্রিয় আছেন। তিনি সিলেট মদন মোহন কলেজ ছাত্রলীগের সাবেক সহসভাপতি, মিতালী পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটি সাবেক সদস্য, কাটাখালি বাজার পরিচালনা কমিটির সাবেক সভাপতি হিসেবে দীর্ঘদিন দায়িত্ব পালন করেছেন। বর্তমানে তিনি বঙ্গবন্ধু তথ্য ও প্রযুক্তি লীগ সিলেট জালালাবাদ থানা শাখার সভাপতি এবং মান্নারগাঁও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্বে আছেন। আওয়ামীলীগের নৌকা প্রতীকে মনোয়ন পেতে গ্রামে গ্রামে তগণসংযোগ করে যাচ্ছেন তিনি।

অসিত কুমার দাস জানান, পারিবারিক ভাবেই আওয়ামীলীগ পরিবার ও অসাম্প্রদায়িক রাজনীতির শিক্ষায় আমার বেড়ে ওঠা। আমার পরিবার এই এলাকার প্রভূত উন্নয়ন সাধন করেছে। আমার বাবার নামে দেখার হাওরে এখনো একটি ফসল রক্ষা বাঁধ আছে। যেটি অতুলের বাঁধ নামে সরকারি কাগজপত্রে গেজেট আকারে আছে। আওয়ামীলীগ পরিবারের সন্তান হিসেবে আমি আশাবাদী মান্নারগাঁও ইউনিয়ন পরিষদে নির্বাচনে নৌকা প্রতীকে মনোয়ন পাব। এলাকায় আমার বিপুল জনসমর্থন আছে। দলীয় প্রতীক পেলে আমি বিপুল ভোটে বিজয়ী হবো। আমি চেয়ারম্যান নির্বাচিত হতে পারলে দলমত, ধর্মবর্ণ নির্বিশেষে সবাইকে নিয়ে ইউনিয়নের উন্নয়নে কাজ করে যাব। আমার বাবা-মার অসমাপ্ত কাজ সমাপ্ত করব। ইউনিয়নের আর্থসামাজিক, শিক্ষা, স্বাস্থ্যসেবা, সামাজিক সুরক্ষা খাত, বেকারত্ব দূরীকরণ, সড়ক যোগাযোগ ও অবকাঠামোগত উন্নয়ন নিশ্চিত করব। সর্বোপরি মান্নারগাঁও ইউনিয়নকে জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে একটি স্বনির্ভর, মাদক মুক্ত ডিজিটাল ইউনিয়ন হিসেবে গড়ে তুলব। আমি সবার দোয়া, সমর্থন ও সার্বিক সহযোগিতা প্রত্যাশা করছি।

আমাদের ফেইসবুক পেইজ