পুলিশের সামনেই এমপি মোকাব্বিরের গাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা

প্রকাশিত: ৬:০৬ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১০, ২০২০

পুলিশের সামনেই এমপি মোকাব্বিরের গাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা

বিশ্বনাথ (সিলেট) প্রতিনিধি :

সিলেটের বিশ্বনাথে পুলিশের সামনেই গণফোরাম নেতা ও সিলেট-২ আসনের এমপি মোকাব্বির খানের গাড়িতে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটেছে। সোমবার দুপুরে উপজেলা মাসিক আইন শৃঙ্খলা কমিটির সভায় উপস্থিত হওয়ার আগ মুহূর্তে উপজেলা পরিষদের গেটে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এমপি নিজেই এ অভিযোগ করেছেন। তিনি বলেন, মাসিক আইন শৃঙ্খলা কমিটির সভায় আমি উপস্থিত হওয়ার সময় পুলিশের সামনেই আমার গাড়িতে এই হামলার ঘটনা ঘটেছে।

তিনি বলেন, আমি এমপি নির্বাচিত হওয়ার পর সংসদে না যাওয়ার জন্য অনেক হুমকি এসেছিল। আমি জনগণের সেবা করার জন্য তারা আমাকে ভোটে নির্বাচিত করেছেন। তখনইতো আমার জীবনের মায়া ছেড়ে আমি সংসদে গিয়েছি। আর এখন আমার ওপরে সন্ত্রাসী হামলা হবে সেটা আমি কখনো ভয় করি না।

এমপি মোকাব্বির খান তার ওপর এই সন্ত্রাসী হামলা দুঃখজনক বলে সভায় উপস্থিত থাকা থানার ওসি শামীম মুসাকে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য নির্দেশ দেন।

সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি পংকি খান এমপির গাড়িতে হামলার নিন্দা জানিয়ে বলেন, আজকে পুলিশের উপস্থিতে এমপির গাড়িতে সন্ত্রাসী হামলায় প্রমাণ করে যে বিশ্বনাথ উপজেলায় আইন শৃংখলার চরম অবনতি হয়েছে। তিনি ক্ষুব্ধ হয়ে এমপির গাড়িতে হামলাকারীদের ২৪ ঘণ্টার ভেতরে গ্রেফতারের জন্য ওসির কাছে দাবি করেন।

এদিকে এমপি মোকাব্বির খানের মাসিক আইন শৃঙ্খলা কমিটির সভায় উপস্থিত হওয়ার খবরে রোববার রাত থেকেই উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। এজন্য সোমবার সকালে আইন শৃঙ্খলা সভাস্থলের আশপাশে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়। এর মধ্যেও এমপির গাড়িতে ওই হামলা চালানো হয়েছে। এনিয়ে আওয়ামী লীগের একটি অংশে চরম ক্ষোভ বিরাজ করেছে। সভা শেষে পুলিশ প্রটোকলে সভাস্থল ত্যাগ করেন এমপি।

তবে সভায় ওসি তার বক্তব্যে বলেন, এমপির পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন। কাউকেই ছাড় দেব না।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বর্ণালী পালের সভাপতিত্বে আইন শৃঙ্খলা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এসএম নুনু মিয়া, উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি মো. কামরুজ্জামান, টিএইচও আবদুর রহমান মূসা, আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ফারুক আহমদ, ভাইস চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান, ইউপি চেয়ারম্যান ছয়ফুল হক, আমির আলী, আলমগীর হোসেন, শিক্ষিকা নেহারুন নেছা, দেওকলস ইউপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান খয়রুল আমিন আজাদ, সাংবাদিক মোসাদ্দিক হোসেন সাজুল, প্রনঞ্জয় বৈদ্য অপু ও আশিক আলী।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ