বিমানের বিশেষ ফ্লাইটে স্পেনে ফিরলেন ২৭৩ বাংলাদেশি

প্রকাশিত: ১১:৩২ অপরাহ্ণ, জুন ২২, ২০২০

বিমানের বিশেষ ফ্লাইটে স্পেনে ফিরলেন ২৭৩ বাংলাদেশি

অনলাইন ডেস্ক :; করোনাভাইরাসের কারণে বাংলাদেশে আটকে পড়া ২৭৩ জন প্রবাসী বাংলাদেশি স্পেনে পৌঁছেছেন। স্পেন বাংলা প্রেসক্লাবের উদ্যোগে বাংলাদেশ বিমানের বিজি-৪১০৯ নম্বরের বিশেষ ফ্লাইটে করে ১৯ জুন স্থানীয় সময় বিকাল সাড়ে ৩টায় মাদ্রিদ (বারাখাছ) আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছান। এসময় তাদের স্বাগত জানান মাদ্রিদস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের কর্মকর্তা, স্থানীয় বাংলাদেশি কমিউনিটির নেতৃবৃন্দ ও যাত্রীদের পরিবারের সদস্যরা।

করোনা মহামারী আকার ধারণ করার আগে স্পেন থেকে অনেক প্রবাসী বাংলাদেশে গিয়েছিলেন। স্পেনে করোনা পরিস্থিতি অনেকটা স্বাভাবিক হলেও ফ্লাইটের অভাবে তারা স্পেনে ফিরতে পারছিলেন না। স্পেন বাংলা প্রেসক্লাবের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে স্পেনস্থ বাংলাদেশ দূতাবাস ও স্থানীয় বাংলাদেশি কমিউনিটির সহযোগিতায় বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স এ বিশেষ ফ্লাইটের ব্যবস্থা করে।

মাদ্রিদ বারাখাছ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আগত প্রবাসীদের স্বাগত জানাতে উপস্থিত ছিলেন মাদ্রিদস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রথম সচিব (শ্রম) মোতাসিমুল ইসলাম।

স্পেন বাংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি সাহাদুল সুহেদ বলেন, সংবাদ পরিবেশনের পাশাপাশি কমিউনিটির প্রতি দায়বদ্ধতাও রয়েছে সংবাদকর্মীদের। এ দায়বদ্ধতা থেকেই বাংলাদেশে বিপাকে পড়া স্পেন প্রবাসীদের স্পেনে প্রত্যাবর্তনে আমরা উদ্যোগ নেই। বিমান বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী মোকাব্বির হোসেন, বাংলাদেশ দূতাবাসের কর্মকর্তাবৃন্দ, বাংলা কাগজের উপদেষ্টা খায়রুল ইসলাম এবং কমিউনিটির সর্বস্তরের মানুষের সহযোগিতায় বিশেষ ফ্লাইটটি স্পেনে অবতরণ করেছে। তাই সবাইকে আমাদের সংগঠনের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।
মাদ্রিদ বারাখাছ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আগত স্পেন প্রবাসীদের স্বাগত জানাতে কউিনিটি নেতৃবৃন্দের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েন ইন স্পেনের সাধারণ সম্পাদক কামরুজ্জামান সুন্দর, স্পেন বাংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি সাহাদুল সুহেদ, সদস্য কবির আল মাহমুদ, ঢাকা জেলা অ্যাসোসিয়েশন এর সাধারণ সম্পাদক এসএম মাসুদুর রহমান, ভালিয়েন্তে বাংলার সাধারণ সম্পাদক রমিজ উদ্দিন, আবু জাফর রাসেল, কুলাউড়া ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন ইন স্পেনের সভাপতি খায়রুজ্জামান জামান, জাহাঙ্গীর আলম ইব্রাহীমসহ বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতারা।